Logo
শিরোনাম
শিবলী সভাপতি, জনি সম্পাদক

আমিরাতে বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের নতুন কমিটি গঠন

প্রকাশিত:বুধবার ২৫ মে ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

মো নূরুল্লাহ খান, আরব আমিরাত থেকে 

সংযুক্ত আরব আমিরাতে বাংলাদেশি গণমাধ্যমকর্মীদের সংগঠন বাংলাদেশ প্রেস ক্লাবের নতুন কমিটি গঠন করা হয়েছে। এতে সময় টেলিভিশনের প্রতিনিধি শিবলী আল সাদিককে সভাপতি ও সমকাল প্রতিনিধি কামরুল হাসান জনিকে সাধারণ সম্পাদক করে ১১ সদস্যের কার্যকরী কমিটি গঠন করা হয়।

 শারজার একটি হোটেলে সাধারণ সভার মাধ্যমে সংগঠনের পুরনো কমিটি বিলুপ্ত ও নতুন কমিটি গঠন করা হয়।

কমিটির অন্যান্যরা হলেন, সিনিয়র সহ সভাপতি এনটিভি প্রতিনিধি মানুনুর রশীদ, সহ সভাপতি বাংলাভিশন প্রতিনিধি মুহাম্মদ মোরশেদ আলম, যুগ্ম সম্পাদক দিনকাল প্রতিনিধি মোদাচ্ছের শাহ, সাংগঠনিক সম্পাদক বাংলা এক্সপ্রেস প্রতিনিধি আবদুল্লাহ আল শাহীন, অর্থ সম্পাদক কক্সবাজার আলো প্রতিনিধি মুহাম্মদ শাহজাহান, প্রচার সম্পাদক সিপ্লাস প্রতিনিধি ইসতিয়াক আসিফ, দপ্তর সম্পাদক ঢাকা পোস্ট প্রতিনিধি মুহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন, নির্বাহী সদস্য যমুনা টেলিভিশন প্রতিনিধি রফিক উল্ল্যাহ ও নির্বাহী সদস্য নিউজ২৪ প্রতিনিধি আবদুল আলীম সাইফুল।

এর আগে সাধারণ সভায় সভাপতিত্ব করেন সদ্য বিদায়ী সভাপতি সিরাজুল হক। সভা পরিচালনা করেন সদ্য বিদায়ী সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ মোরশেদ আলম।

পরে সাংবাদিক মোহাম্মদ শাহাজাহান, শামসুর রহমান সোহেল ও শামসুল হককে নির্বাচন পরিচালনার দায়িত্ব দেওয়া হয়। নির্বাচন কমিশন ভোটাভুটির মাধ্যমে কমিটির সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক ও যুগ্ম সম্পাদক নির্বাচিত করেন।

পরে নির্বাচিত নতুন কমিটির দায়িত্বপ্রাপ্তরা আরব আমিরাত প্রেসক্লাব প্রবাসীদের মুখপাত্র হয়ে আগামীতে কাজ করে যাওয়ার অঙ্গীকার করেন। তারা প্রবাসীদের সুখ দুঃখে পাশে থেকে কাজ করার জন্য বিগত দিনের মত প্রবাসীদের সহযোগিতা কামনা করেন।

তারা বলেন, সত্যকে সত্য ও মিথ্যাকে মিথ্যা আখ্যায়িত করার মানসিকতা নিয়ে প্রেস ক্লাবের সকল সদস্য সংবাদ পরিবেশের উপর মনোনিবেশ করবেন।

কমিটির সদস্যরা হলেন, মুহাম্মদ সিরাজুল হক, শেখ ফয়সাল সিদ্দিকী ববি, সনজিত কুমার শীল, মুহাম্মদ ইছমাইল, সরোয়ার উদ্দিন রনি, রবিউল হোসেন, মোহাম্মদ ওসমান চৌধুরী, সৈয়দ খোরশেদ আলম, শামসুল হক, জাহিদ হোসেন, সাজন সাজু, মুহাম্মদ সেলিম, শামছুর রহমান সোহেল ও মুহাম্মদ ইরফানুল ইসলাম।

বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের নব ঘোষিত কমিটির নেতৃবৃন্দকে অভিনন্দন ও শুভ কামনা জানিয়েছেন দুবাই ও উত্তর আমিরাতের মান্যবর কনসাল জেনারেল বিএম জামাল হোসেন।


আরও খবর



গ্যাস থাকবেনা টানা সাত দিন

প্রকাশিত:শনিবার ০৫ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

বুলবুল আহমেদ সোহেল ঃ

সঞ্চালন লাইন মেরামত কাজের জন্য ঢাকার কিছু অংশ নারায়ণগঞ্জের বেশ কয়েকটি এলাকায় এবং মুন্সীগঞ্জে  টানা এক সপ্তাহ ধরে গ্যাস সরবরাহ বিঘ্ন বা বন্ধ থাকতে পারে। বিতরণ সংস্থা তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি শনিবার এক জরুরি নোটিসে এই সতর্কবার্তা দিয়েছে।

রোববার (৬ নভেম্বর) থেকে ১২ নভেম্বর পর্যন্ত সঞ্চালন কোম্পানি জিটিসিএলের ৩০ ইঞ্চি পাইপের মেরামত কাজের জন্য এই পরিস্থিতি বিরাজ করবে।

তিতাসের বার্তায় বলা হয়, ‘জিটিসিএল কর্তৃক আগামী ০৬ নভেম্বর রোববার থেকে ১২ নভেম্বর শনিবার পর্যন্ত বাখরাবাদ-সিদ্ধিরগঞ্জ ৩০ ইঞ্চি ব্যাস, ৬০ কি.মি. দীর্ঘ উচ্চচাপ বিশিষ্ট গ্যাস সঞ্চালন পাইপলাইনে ইন্টেলিজেন্ট পিগিং করা হবে। এর ফলে এই সময়ের মধ্যে তিতাস গ্যাসের অধিভূক্ত ঢাকা মহানগরীর দক্ষিণ অংশের আংশিক এলাকা, জিঞ্জিরা, কেরানীগঞ্জ, মেঘনাঘাট, সোনারগাঁও, হরিপুর, নারায়ণগঞ্জ, ফতুল্লা ও মুন্সীগঞ্জ এলাকায় গ্যাস সরবরাহ বিঘ্ন ঘটবে। কোথাও কোথাও স্বল্প চাপ বিরাজ করতে পারে।’

নারায়ণগঞ্জ আঞ্চলিক বিপনন বিভাগের ডিজিএম মামুনুর রশীদ জানান, ‘জিটিসিএলের সঞ্চালন লাইন পরিষ্কার করা হবে। এর ফলে গ্যাসের চাপ কিছুটা হলেও কমে গেছে। পাইপের ভেতর থেকে মরিচা পরিষ্কার করার পরে গ্যাসের চাপ বাড়বে।


আরও খবর



নয়াপল্টনে সমাবেশ নিয়ে নমনীয় বিএনপি

প্রকাশিত:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

১০ ডিসেম্বরের বিএনপির সমাবেশের জন্য সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের বিকল্প কোন জায়গার প্রস্তাব পেলে সেটি বিবেচনা করা হবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

 দুপুরে নয়াপল্টনে দলীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন তিনি। এসময় নয়াপল্টনেই সমাবেশ করা নিয়ে নমনীয় হয় বিএনপি। তবে সোহরাওয়ার্দী উদ্যান আর তুরাগ তীরে সমাবেশ না করার কথা জানান দলের মহাসচিব। এসময় তিনি আরো বলেন, যেকোনো স্থানে সমাবেশ করা দলেরন সাংবিধানিক ও গণতান্ত্রিক অধিকার। সেখানে আগ বাড়িয়ে নাশকতা হবে বলে সরকার বিএনপির সাংবিধানিক অধিকারকে লঙ্ঘন করছে বলেও অভিযোগ আনেন মির্জা ফখরুল।


আরও খবর



ই-টিকেটিংয়ে বন্ধ অতিরিক্ত ভাড়া

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৫ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০৩ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

রোকসানা মনোয়ার : আধুনিক গণপরিবহন সেবার একটি অংশ ই-টিকেটিং। সম্প্রতি ঢাকা শহরে এই সেবা চালু করা হয়েছে। ই-টিকেটিংয়ের কারণে বন্ধ হয়েছে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়। তবে মালিকরা কমিয়ে দিয়েছেন বাস। যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব মোজাম্মেল হক চৌধুরী এমনটি দাবি করছেন।

শুরুতেই ই-টিকেটিং নিয়ে যাত্রী ও বাস মালিক-শ্রমিকের মধ্যে নানা মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা যায়। ই-টিকেটিং চালুর পর বিভিন্ন রুটে বাসের সংখ্যা কমিয়ে দেন মালিকরা। এছাড়া বাসে দূরত্বের ব্যবধানে স্বাভাবিকের চেয়ে ৫ থেকে ১০ টাকা পর্যন্ত বাড়তি ভাড়া নেওয়ার অভিযোগ করেন নগরীর যাত্রীরা।

তবে ই-টিকেটিং ব্যবস্থাকে স্বাগত জানিয়ে যাত্রী কল্যাণ সমিতির নেতারা বলছেন, পরিবহন খাতে দীর্ঘদিনের পুঞ্জীভূত সমস্যা সমাধানের পাশাপাশি এই খাতের আমূল সংস্কার করা না গেলে ই-টিকেটিং সিস্টেমে সিটিবাস সার্ভিস ব্যবস্থা টিকিয়ে রাখা সম্ভব হবে না।

তারা বলছেন, ই-টিকিটে দূরত্ব অনুযায়ী ভাড়া আদায় নিশ্চিত করায় যাত্রী ভাড়া কমে আসছে, ফলে বাসমালিকের আয়ও কমে যাচ্ছে। এমন অবস্থায় গণপরিবহনে অদৃশ্য খরচ বন্ধ করা না গেলে অনেক পরিবহন মালিককে লোকসান দিয়ে বাস চালাতে হবে।

যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব বলেন, দীর্ঘদিন পর নগরীর সিটি সার্ভিসের বাসে ই-টিকেটিং সেবা চালু করায় ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির নেতাদের ধন্যবাদ। প্রতিটি টিকিটে বাসের নাম, বাসের নিবন্ধন নম্বর, যাত্রা ও গন্তব্যের নাম, দূরত্ব, ভাড়ার অঙ্ক, ভ্রমণ তারিখ ও অভিযোগ কেন্দ্রের নম্বর থাকার কথা থাকলেও বর্তমানে ই-টিকেটিং ব্যবস্থায় এসব পূর্ণাঙ্গ তথ্য নেই। কোনো কোনো টিকিটে শুধু ভাড়ার অঙ্ক লেখা রয়েছে। ফলে এসব টিকিট দিয়ে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করা হলে যাত্রীদের প্রতিকার পাওয়ার কোনো সুযোগ নেই বলে দাবি করেন যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব।

ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান বলেন, ই-টিকেটিং উন্নত বিশ্বে আগে চালু হলেও গত চার বছর আগে বাংলাদেশে চালু হয়। রাজধানীর বাসভাড়া নৈরাজ্য দূরীকরণে এটা চালু করা হয়েছে। ফলে ওয়েবিলের নামে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় বন্ধের পাশাপাশি বাসে বাসে অসম প্রতিযোগিতা বন্ধ হবে। রাজধানীতে ৩০ নভেম্বরের পর থেকে লক্কড়-ঝক্কড় বাস বন্ধ হয়ে যাবে। সব বাস সার্ভিস দৃষ্টিনন্দন করা হবে।



আরও খবর

ই-টিকেটিংয়ে কমেছে ভাড়ার নৈরাজ্য

মঙ্গলবার ২৯ নভেম্বর ২০২২




আত্রাইয়ে বিষক্রিয়ায় কৃষকের মৃত্যু দাবি পরিবারের

প্রকাশিত:শনিবার ২৬ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

কাজী আনিছুর রহমান,রাণীনগর (নওগাঁ) :

নওগাঁর আত্রাইয়ে ভূট্রা ক্ষেতে কিটনাশক স্প্রে করার সময় বিষক্রিয়ায় ইসরাফিল মোল্লা (৪০) নামে এক কৃষকের মৃত্যু হয়েছে বলে দাবি করেছে পরিবার। এঘটনায় আত্রাই থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা রুজু করা হয়েছে।পরে থানাপুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে। ইসরাফিল রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার বড়মাধাইমুড়ি গ্রামের ইয়াছিন আলীর ছেলে।

ইসরাফিলের ছেলে জামিরুল মোল্লা বলেন,গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার একটু আগে পার্শ্ববতি আত্রাই উপজেলার ব্রজপুর মাঠে নিজস্ব ভূট্রার ক্ষেতে কিটনাশক স্প্রে করার জন্য যান বাবা ইসরাফিল মোল্লা। এর পর রাতে আর বাড়ীতে ফিরে আসেনি। পরের দিন শুক্রবার সন্ধান করতে গিয়ে ভূট্রা ক্ষেতে মৃত্যু অবস্থায় পরে থাকতে দেখে সেখান থেকে লাশ বাড়ীতে নিয়ে আসি। তিনি বলেন, কিটনাশক স্প্রে করার সময় মূখে মাস্ক এবং পায়ে স্যান্ডেল ছিলনা। ফলে বিষক্রিয়ায় মৃত্যু হতে পারে বলে জানান তিনি। এঘটনায় ইসরাফিলের স্ত্রী কারিমা খাতুন থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করেন। 

আত্রাই থানার ওসি তারেকুর রহমান সরকার বলেন,ইসরাফিলের মৃত্যুর ঘটনায় স্ত্রী বাদী হয়ে অপমৃত্যু মামলা দায়ের করেছেন। মামলার প্রেক্ষিতে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট হাতে পেলেই মৃত্যুর সঠিক কারন জানা যাবে।


আরও খবর



মোরেলগঞ্জে ৬৫ হাজার টাকাসহ এইচ পি ফাউন্ডেশনের ২ সদস্য গ্রেফতার

প্রকাশিত:সোমবার ০৭ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

এম.পলাশ শরীফ, নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে 'এইচ পি সামাজিক উন্নয়ন ফাউন্ডেশন' নামে একটি বেসরকারি সংস্থার ২ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এরা হচ্ছেন শরণখোলা উপজেলার রাজাপুর গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে একেএম সাদেকুর রহমান(৪৪) ও মোরেলগঞ্জের উমাজুড়ি গ্রামের মোসলেম মুন্সির ছেলে মো. আ. কাদের মুন্সি(৭০)। 

সোমবার বেলা ১০টার দিকে এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করেছেন সমাজসেবা দপ্তরের সহকারি পরিদর্শক এসএম সুজন। গতকাল রবিবার বিকেলে মোরেলগঞ্জের বারইখালী গ্রামে সংস্থার পক্ষে সদস্য সংগ্রহ করার সময় এ দুজনকে পুলিশ গ্রেফতার করে।

তারা মোরেলগঞ্জের অতিদরিদ্র জনগোষ্ঠীর লোকদরেকে লোন, গরুসহ বিভিন্ন ধরণের সহযোগিতা দেওয়ার কথা বলে ৫০০ টাকা করে নিয়ে সদস্য করছিল। 

বারইখালী গ্রামের মো. রফিক তালুকদারকে ৪টি গরু দেওয়ার কথা বলে তার নিকট থেকে ২৫ হাজার টাকা নিয়েছে এইচ পি'র ওই দুই মাঠকর্মী। সংস্থাটি খুলনার খালিশপুর এলাকার। যার কোন রেজিষ্ট্রেশন নম্বর নেই।

এ বিষয়ে থানার ওসি মো. সাইদুর রহমান বলেন, এইচ পি ফাউন্ডেশনের দুই মাঠকর্মীকে স্থানীয়রা আটক করে পুলিশে খবর দেয়। তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়েছে। 

গ্রেফতার হওয়া ওই দুই ব্যক্তির নিটক থেকে সদস্য সংগ্রহের ফরম, লিফলেট, নগদ ৬৫ হাজার টাকা ও একটি মোটরসাইকেলসহ বেশ কিছু আলামত জব্দ করা হয়েছে। 


আরও খবর