Logo
শিরোনাম

বেলা দু’টার পর ’বৈধতা’ নিয়ে প্রেম করবে !!

প্রকাশিত:Friday ০৫ August ২০২২ | হালনাগাদ:Friday ২৭ January ২০২৩ |
Image

মাজহারুল ইসলাম মাসুম সিনিয়র সাংবাদিক, কলাম লেখক ও গবেষক ঃ

শুনলাম বোটানিক্যাল গার্ডেনে আগামী পহেলা সেপ্টেম্বর থেকে বেলা ২ টা পর্যন্ত ছাত্র-ছাত্রীদের ইউনিফর্ম পরে বাগানো প্রবেশ নিষেধ করে দেয়া হচ্ছে ।  জানতে পারলাম বাগানে ছা্ত্র-ছাত্রীরা ’প্রেম করে’ তাই কর্তৃপক্ষ  এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে । কত বড় হাস্যকর যুক্তি !! কত বড় উজবেকিস্তান !! দেশ যখন পুরো ’ডিজিটাল’, বাগান সেখানে এনালগ রাখার চেষ্টা !! ছাত্র-ছাত্রী যদি প্রেম করতে চায়, বাগান-তো-বাগান, সেনা-বাহিনীও কিছু করতে পারবে না । তারা ব্যাগে ভরে অন্য একটি ড্রেস আনবে, সেটি কারও বাসায় পরে সোজা বাগানে চলে আসবে । আমি কোন ভাবে  জানতে পেরেছি  প্রেমিক-প্রেমিকারা ব্যাগে আলাদা ড্রেস রাখে, যাতে করে এসব নিয়ম-কানুনকে ‘কেশ’ দেখানো যায় ! আমি বেশ কয়েকবার বাগানে ঘুরতে গিয়েছি । আমার চোখে আপত্তি করার মত সেরকম কোন কিছু চোখে পড়েনি । তবে, ব্যতিক্রম কিছু ঘটনা অবশ্যই আছে । সেসব ক্ষেত্রে কর্তা-কত্রী দু’জনকে আমার ’এডাল্ট’ মনে হয়েছে । আমরা মূল জায়গায় Intervene না করে, ফালতু সব সিদ্ধান্ত নেই । বাগানে আসা বন্ধ হলে, আমি গ্যারান্টি দিয়ে বলতে পারি, প্রেম বন্ধ হবে না । তারা বেলা দু’টার পর ’বৈধতা’ নিয়ে প্রেম করবে !! বাড়িতে গিয়ে বলবে এক্সট্রা ক্লাস ছিল, ইত্যাদি । আমি আরও খেয়াল করেছি, শহরের ওভারপাস ব্রিজে শত শত ভিজিটিং কার্ড পড়ে আছে । সেখানে লেখা ‘সনি ভাই হোটেল আবাসিক’, ‘অভি ভাই হোটেল আবাসিক’ ইত্যাদি । সেখানে ভাইদের ফোন নম্বরও দেয়া আছে । বাগানে ছা্ত্র-ছাত্রীদের সাময়িক প্রবেশ নিষেধ হলে প্রেমিক-প্রেমিকারা (যদি স্যতিই তাই হয়), ঐসব ভাইদের হোটেলে চলে যেতে পারে । হোটেলে গেলে ঘটনা কোন্ দিকে মোড় নিতে পারে তা একবার ভেবে দেখেন । আমি দেখেছি বাগানের কিছু লোক কিছু বিশেষ জায়গায় সমানে গার্ড দিচ্ছেন । গার্ডিং সময় শেষ হলে দেখতে পাই আড়াল থেকে বের হচ্ছে এক জুটি । গার্ড-বাহিনীর পাহারায় তারা প্রেম করছিল বলে ধরে নেয়া যায় । আমার আরেকটি কথা হলো, বাগান একটি পাবলিক প্লেস । এখানে ছেলেমেয়েদের ওপর কৌশলে নজর-দারি করা সম্ভব, যেটা হোটেলে গিয়ে করা সম্ভব নয় । বাগানে Misdemeanor অথবা Juvenile Delinquency হলে সেটার জন্য নিয়ম-কানুন নিশ্চয়ই আছে । না থাকলে করে নেয়া যেতে পারে । পরের কথাটি বলার একটা প্রেক্ষাপট তৈরি হলো । সেটি হলো, আপনাদের নিশ্চয়ই মনে আছে, আমরা জোর খাটিয়ে, অগ্র-পশ্চাৎ চিন্তা না করে ইংলিশ রোড ও টানবাজার কিভাবে ’পরিষ্কার’ করেছিলাম । তাতে পরবর্তীতে শহরের আনাচে-কানাচে ও বাসা-বাড়িতে Brothel পৌঁছে গেছে । আমরা যদি চাই, আমাদের ছেলে-মেয়েরা প্রেম করবে না, সে ক্ষেত্রে আমাদের প্রথম কাজ হলো তাদেরকে মোটিভেইট করা । তারপর প্রয়োজনে পেশাদার কাউন্সিলরের কাছে যাওয়া যেতে পারে । সর্বশেষ, কথা হলো এই, আমি দেখেছি বেশির ভাগ ক্ষেত্রে এরা ক্লাসমেইট এবং দল বেঁধে বাগানে আসে। এখানে, দু-একটি মাইনরের সাথে এডাল্টকে দেখা গেছে । আমরা কি জানি, আমাদের ছেলে মেয়েদের শারীরিক কোন অভিজ্ঞতা হয়েছে কিনা? হয়ে থাকলে কোন্ বয়সে হয়েছে? আমরা কি এসব বিষয় নিয়ে ছেলে মেয়েদের সাথে কথা বলেছি?


আরও খবর



বিশ্ব ইজতেমার প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে

প্রকাশিত:Saturday ০৭ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Thursday ২৬ January ২০২৩ |
Image

মইনুল ইসলাম মিতুল :আগামী ১৩ জানুয়ারি টঙ্গীর তুরাগতীরে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ৫৬ তম বিশ্ব ইজতেমা। এরই মধ্যে বিশ্ব ইজতেমায় সম্পূর্ণ করা হয়েছে অধিকাংশ কর্মকাণ্ড। এরই মধ্যে ময়দানের ৭৫ ভাগ কাজ শেষ হয়েছে বলে জানিয়েছে ইজতেমা আয়োজক কমিটি। প্রস্তুত করা হয়েছে জেলাভিত্তিক খিত্তার তালিকা।

জুবায়েরপন্থির তিন দিনের ইজতেমাকে ঘিরে টঙ্গী ও আশপাশ এলাকায় ধর্মীয় উৎসবের আমেজ বিরাজ করছে। প্রতি বছর ইজতেমায় তাবলিগ জামাতের ঢাকা জেলার সাথিরা সবার শেষে তাদের জন্য নির্ধারিত খিত্তার কাজ করে থাকেন এবারও শুধু ঢাকা জেলার মুসল্লিদের জন্য নির্ধারিত খিত্তার স্থান বাদে অন্যসব কাজ দ্রুত এগিয়ে চলছে। আগামী বৃহস্পতিবারের মধ্যেই দেশ-বিদেশের লাখ লাখ মুসল্লি ময়দানে এসে তাদের জন্য নির্ধারিত খিত্তায় অবস্থান নেবেন।

এ বছর প্রথম পর্বের বিশ্ব ইজতেমায় আগত ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা যেসব খিত্তায় অবস্থান করবেন তা হলো গাজীপুর (খিত্তা-১), টঙ্গী (খিত্তা-২, ৩ ও ৪), ঢাকা (খিত্তা-৫ থেকে ১৮ ও ২১, ২২, ২৫, ২৭, ২৮, ৩০), রাজশাহী (১৯), চাঁপাইনবাবগঞ্জ (২০), নাটোর (২৩), নওগাঁ (২৪), নড়াইল (২৬), সিরাজগঞ্জ (২৯), টাঙ্গাইল (৩১), রংপুর (৩২), গাইবান্ধা (৩৩), লালমনিরহাট (৩৪), মুন্সীগঞ্জ (৩৫), যশোর (৩৬), নীলফামারী (৩৭), বগুড়া (৩৮), জয়পুরহাট (৩৯), নারায়ণগঞ্জ (৪০), ফরিদপুর (৪১), ভোলা (৪২), নরসিংদী (৪৩), সাতক্ষীরা (৪৪), বাগেরহাট (৪৫), কুষ্টিয়া (৪৬), মেহেরপুর (৪৭), চুয়াডাঙ্গা (৪৮), ময়মনসিংহ (৪৯, ৫১), শেরপুর (৫০), জামালপুর (৫২), গোপালগঞ্জ (৫৩), কিশোরগঞ্জ (৫৪), নেত্রকোনা (৫৫), ঝালকাঠি (৫৬), বান্দরবান (৫৭), বরিশাল (৫৮), পিরোজপুর (৫৯), হবিগঞ্জ (৬০), কক্সবাজার (৬১), সিলেট (৬২), সুনামগঞ্জ (৬৩), ফেনী (৬৪), নোয়াখালী (৬৫), লক্ষ্মীপুর (৬৬), চাঁদপুর (৬৭), ব্রাহ্মণবাড়িয়া (৬৮), খুলনা (৬৯), পটুয়াখালী (৭০), বরগুনা (৭১), চট্টগ্রাম (৭৪), কুমিল্লা (৭৫), তুরাগ নদের পশ্চিমপাড় কাঁচাবাজারে মৌলভীবাজার (৭৬), রাজবাড়ী (৭৭), মাদারীপুর (৭৮), শরীয়তপুর (৭৯), মানিকগঞ্জ (৮০, সাফা টাওয়ার), রাঙ্গামাটি (৮১), খাগড়াছড়ি (৮২), দিনাজপুর (৮৩), পাবনা (৮৪), ঠাকুরগাঁও (৮৫), ঝিনাইদহ (৮৭, যমুনা প্লট), মাগুরা (৮৮, যমুনা প্লট), কুড়িগ্রাম (৮৯, কামারপাড়া বেড়িবাঁধ বঙ্গবন্ধু মাঠ) ও পঞ্চগড় (৯০, কামারপাড়া হাইস্কুল মাঠ-বধির স্কুল ভবন)। দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে আগতরা নির্দিষ্ট খিত্তার আওতাভুক্ত জায়গায় অবস্থান নিয়ে ইবাদত-বন্দেগিতে মশগুল থাকবেন।

এ ছাড়া ময়দানের চারপাশে ১১ ও ১২ নম্বর খিত্তার কিছু অংশ, ৩২ ও ৩৭ নম্বর খিত্তার মাঝামাঝি ১২, ৭২, ৭৩, ৮৬ ও ৯১ নম্বর খিত্তা সংরক্ষিত হিসেবে রাখা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন বিশ্ব ইজতেমা আয়োজক কমিটির শীর্ষ মুরব্বি ডা. খান মোহাম্মদ শাহাবুদ্দিন। টঙ্গী পশ্চিম থানার ওসি মো. শাহ আলম বলেন, ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের নিরাপত্তায় পুরো ময়দানে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ ও র‌্যাবের পক্ষ থেকে তিন শতাধিক ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরা স্থাপন করা হচ্ছে। সিসিটিভির মাধ্যমে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে পুরো ময়দানের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি পর্যেবক্ষণ করা হবে।

১৩ জানুয়ারি শুক্রবার শুরু হয়ে ১৫ জানুয়ারি রবিবার আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে প্রথম পর্বের (জুবায়েরপন্থি) বিশ্ব ইজতেমার সমাপ্তি ঘটবে। মাঝে ৪ দিন বিরতি দিয়ে ২০ জানুয়ারি দিল্লির নিজামুদ্দিন মারকাযের অনুসারী (মাওলানা সাথদপন্থি) মুসল্লিরা বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বে অংশ নেবেন।

২২ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মাধ্যমে এবারের বিশ্ব ইজতেমার সমাপ্তি ঘটবে। ২০২০ সালে ৫৫তম বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হয়। এরপর করোনা-১৯ মহামারির কারণে গত দুই বছর ২০২১ ও ২০২২ সালে ইজতেমা হয়নি।

 


আরও খবর



দিল্লিতে ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ থাকবে স্কুল

প্রকাশিত:Monday ০৯ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Thursday ২৬ January ২০২৩ |
Image

ভারতের রাজধানী দিল্লিতে তীব্র শীতের কারণে সব সরকারি-বেসরকারি স্কুল ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে রাজ্যটির শিক্ষা বিভাগ।

শীতের ছুটি শেষে আজ সোমবারই স্কুল খোলার কথা ছিলো। রবিবার দিল্লিতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ১ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এটি গত দশ বছরের মধ্যে দ্বিতীয় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। এরপরই আসে এ ঘোষণা। দিল্লি ছাড়াও উত্তর ভারতের পাঞ্জাব, হরিয়ানা, চণ্ডীগড়, উত্তরপ্রদেশ, উত্তরাখণ্ড, উত্তর রাজস্থান, বিহার, পশ্চিমবঙ্গ, সিকিম, আসাম, ত্রিপুরা, মধ্যপ্রদেশে কুয়াশা দুই থেকে তিন দিন ধরে জেঁকে বসেছে। যার কারণে ভারতের আবহাওয়া দপ্তর একাধিক সতর্কবার্তাও জারি করেছে।


আরও খবর



বিপিএলের নবম আসর শুরু

প্রকাশিত:Friday ০৬ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Wednesday ২৫ January ২০২৩ |
Image

ইয়াশফি রহমান : বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) নবম আসর শুরু হচ্ছে আজ। সাতটি দলকে নিয়ে শুরু হওয়া এই টুর্নামেন্টের এবারের টাইটেল স্পন্সর ইস্পাহানি ও মিনিস্টার গ্রুপ।

বিপিএলের উদ্বোধনী দিনে রয়েছে দুটি ম্যাচ। প্রথম ম্যাচে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মুখোমুখি হবে সিলেট সিক্সার্স। দ্বিতীয় ম্যাচে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স লড়বে রংপুর রাইডার্সের বিপক্ষে।

ঢাকা পর্ব

৬ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স-সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর- ২:৩০

৬ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স-রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:১৫

৭ জানুয়ারি- ঢাকা ডোমিনেটরস-খুলনা টাইগার্স, ভেন্যু -ঢাকা, দুপুর ২:০০

৭ জানুয়ারি- ফরচুন বরিশাল-সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু -ঢাকা, সন্ধ্যা ৭:০০

৯ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স-সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু -ঢাকা, দুপুর ২:০০

৯ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স- খুলনা টাইগার্স, ভেন্যু -ঢাকা, সন্ধ্যা ৭:০০

১০ জানুয়ারি- ফরচুন বরিশাল-রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু -ঢাকা, দুপুর ২:০০

১০ জানুয়ারি- ঢাকা ডোমিনেটরস-সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু -ঢাকা, সন্ধ্যা ৭:০০

চট্টগ্রাম পর্ব

১৩ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স- ফরচুন বরিশাল, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, দুপুর ২:৩০

১৩ জানুয়ারি- খুলনা টাইগার্স- রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, সন্ধ্যা ৭:১৫

১৪ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স-ফরচুন বরিশাল, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, দুপুর ২:০০

১৪ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স-ঢাকা ডোমিনেটরস, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, দুপুর ২:০০

১৬ জানুয়ারি- ঢাকা ডোমিনেটরস-সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু -চট্টগ্রাম, দুপুর ২:০০

১৬ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স-কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, সন্ধ্যা ৭:০০

১৭ জানুয়ারি- খুলনা টাইগার্স- রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, দুপুর ২:০০

১৭ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স- সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, সন্ধ্যা ৭:০০

১৯ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স- ঢাকা ডোমিনেটরস, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, দুপুর ২:০০

১৯ জানুয়ারি- ফরচুন বরিশাল- রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, সন্ধ্যা ৭:০০

২০ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স-খুলনা টাইগার্স, ভেন্যু - চট্টগ্রাম, দুপুর ২:৩০

২০ জানুয়ারি- ঢাকা ডোমিনেটরস-ফরচুন বরিশাল, ভেন্যু -চট্টগ্রাম, সন্ধ্যা- ৭:১৫

ঢাকা পর্ব

২৩ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স-রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর ২:০০

২৩ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স-ঢাকা ডোমিনেটরস, ভেন্যু-ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:০০

২৪ জানুয়ারি- ফরচুন বরিশাল-সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু-ঢাকা, দুপুর ২:০০

২৪ জানুয়ারি- খুলনা টাইগার্স-ঢাকা ডোমিনেটরস, ভেন্যু-ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:০০

সিলেট পর্ব

২৭ জানুয়ারি- রংপুর রাইডার্স-সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু- সিলেট, দুপুর ২:৩০

২৭ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স-ফরচুন বরিশাল, ভেন্যু- সিলেট, সন্ধ্যা- ৭:১৫

২৮ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স-খুলনা টাইগার্স, ভেন্যু- সিলেট, দুপুর ২:০০

২৮ জানুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স- সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু- সিলেট, সন্ধ্যা- ৭:০০

৩০ জানুয়ারি- রংপুর রাইডার্স- ঢাকা ডোমিনেটরস, ভেন্যু- সিলেট, দুপুর ২:০০

৩০ জানুয়ারি- খুলনা টাইগার্র্স- সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু- সিলেট, সন্ধ্যা- ৭:০০

৩১ জানুয়ারি- ঢাকা ডোমিনেটরস- ফরচুন বরিশাল, ভেন্যু- সিলেট, দুপুর ২:০০

৩১ জানুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স- খুলনা টাইগার্স, ভেন্যু- সিলেট, সন্ধ্যা- ৭:০০

ঢাকা পর্ব

৩ ফেব্রুয়ারি- ফরচুন বরিশাল-খুলনা টাইগার্স, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর ২:৩০

৩ ফেব্রুয়ারি- ঢাকা ডোমিনেটরস - রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:১৫

৪ ফেব্রুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর ২:০০

৪ ফেব্রুয়ারি- রংপুর রাইডার্স- সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:০০

৭ ফেব্রুয়ারি- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স- ঢাকা ডোমিনেটরস, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর ২:০০

৭ ফেব্রুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স- ফরচুন বরিশাল, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:০০

৮ ফেব্রুয়ারি- খুলনা টাইগার্স- সিলেট স্ট্রাইকার্স, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর ২:০০

৮ ফেব্রুয়ারি- রংপুর রাইডার্স- চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:০০

১০ ফেব্রুয়ারি- কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স- রংপুর রাইডার্স, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর ২:০০

১০ ফেব্রুয়ারি- ফরচুন বরিশাল- খুলনা টাইগার্স, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:০০

১২ ফেব্রুয়ারি- এলিমিনেটর, ভেন্যু- ঢাকা, দুপুর ২:০০

১২ ফেব্রুয়ারি- প্রথম কোয়ালিফাইয়ার, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:০০

১৪ ফেব্রুয়ারি- দ্বিতীয় কোয়ালিফাইয়ার, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:১৫

১৬ ফেব্রুয়ারি- ফাইনাল, ভেন্যু- ঢাকা, সন্ধ্যা- ৭:১৫


আরও খবর



প্রশ্নফাঁসে ১০ বছর কারাদণ্ডের আইন পাস

প্রকাশিত:Tuesday ১৭ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Friday ২৭ January ২০২৩ |
Image

বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন আইন-২০২৩ বিল’জাতীয় সংসদে পাস হয়েছে। পাবলিক সার্ভিস কমিশনের (পিএসসি) অধীনে কোনো পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁস করলে সর্বোচ্চ ১০ বছরের কারাদণ্ড এবং অর্থদণ্ডের বিধান রেখে সংসদে ‘বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন আইন-২০২৩ বিল’পাস হয়। এছাড়া ভুয়া পরিচয়ে অংশ নিলে ২ বছরের কারাদণ্ডের বিধান রেখে জাতীয় সংসদ একটি বিল পাস হয়েছে।

আইনে সরকারি চাকরির পরীক্ষাসংক্রান্ত বিভিন্ন অপরাধ ও তার সাজা নির্ধারণ করা হয়েছে। তাতে বলা হয়েছে, কোনো ব্যক্তি পরীক্ষার্থী না হয়েও নিজেকে পরীক্ষার্থী হিসেবে হাজির করলে বা মিথ্যা তথ্য দিয়ে পরীক্ষার হলে প্রবেশ করলে বা অন্য কোনো ব্যক্তির নামে বা কোনো কল্পিত নামে পরীক্ষায় অংশ নিলে তা অপরাধ হিসেবে গণ্য হবে। এর শাস্তি সর্বোচ্চ ২ বছরের কারাদণ্ড বা অর্থদণ্ড বা উভয় দণ্ড।

এর আগে বিলটির ওপর আনা জনমত যাচাই-বাছাই কমিটিতে পাঠানো হয় এবং সংশোধনীগুলো কণ্ঠভোটে নাকচ হয়ে যায়। তবে জাতীয় পার্টির এমপি ফখরুল ইমামের একটি সংশোধনী গ্রহণ করা হয়।

১৯৭৭ সালে প্রণীত বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশন অর্ডিন্যান্স রহিত করে নতুন এ আইন প্রণীত হয়েছে। বিলে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশন অর্ডিন্যান্সের অধীন প্রতিষ্ঠিত বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন এমনভাবে বহাল থাকবে, যেন এটি নতুন আইনের অধীন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। একজন সভাপতি এবং ছয় থেকে সর্বোচ্চ ১৫ জন সদস্যের সমন্বয়ে কমিশন গঠিত হবে। কমিশন প্রজাতন্ত্রের জনবল নিয়োগের উদ্দেশে সংশ্লিষ্ট আইন ও বিধিবিধান সাপেক্ষে পরীক্ষা নেওয়ার পদ্ধতি ও শর্তাবলি নির্ধারণ করতে পারবে।

বিলে প্রশ্নপত্র ফাঁস সম্পর্কে বলা হয়েছে, কোনো ব্যক্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ার আগে পরীক্ষার জন্য প্রণীত কোনো প্রশ্ন সংবলিত কাগজ বা তথ্য, পরীক্ষার জন্য প্রণীত হয়েছে বলে মিথ্যা ধারণাদায়ক কোনো প্রশ্ন সংবলিত কাগজ বা তথ্য অথবা পরীক্ষার জন্য প্রণীত প্রশ্নের সঙ্গে হুবহু মিল রয়েছে বলে বিবেচিত হওয়ার অভিপ্রায়ে কোনো প্রশ্ন সংবলিত কাগজ বা তথ্য যেকোনো উপায়ে ফাঁস, প্রকাশ বা বিতরণ করলে তা দণ্ডনীয় অপরাধ হিসেবে বিবেচিত হবে। এর শাস্তি সর্বোচ্চ ১০ বছরের কারাদণ্ড ও অর্থদণ্ড। এ অপরাধ আমলযোগ্য ও অজামিনযোগ্য হবে।


আরও খবর



সাভারে ইট ভাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান

প্রকাশিত:Tuesday ২৪ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Friday ২৭ January ২০২৩ |
Image

মাহবুবুল আলম রিপন,স্টাফ রিপোর্টার:

পরিবেশের ছাড়পত্র না থাকায় সাভারে দুইটি ইট ভাটায় অভিযান পরিচালনা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। রবিবার ২২ জানুয়ারী বিকেলে উপজেলার তেঁতুলঝোড়া ইউনিয়নের হেমায়েতপুরের শ্যামপুর এলাকায় এ অভিযান পরিচালনা করেন সাভার উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ইসমাইল হোসেন।

সাভার উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ইসমাইল হোসেন বলেন, তেঁতুলঝোড়া ইউনিয়নের হেমায়েতপুরের শ্যামপুর এলাকায় এমবি এম, ও একে এম ব্রিকস এর মালিকগণ দীর্ঘদিন ধরে প্রশাসনের চোঁখ ফাকি দিয়ে পরিবেশ দুষণ করে ছাড়পত্র না নিয়ে ইট প্রস্তুত করে বাজারজাত করে আসছিলো। পরে আজ বিকেলে ওই দুটি ইট ভাটায় অভিযান পরিচালনা করা হয়। এসময় পরিবেশের ছাড়পত্র না থাকায় এবং পরিবেশ দুষণের অভিযোগে একে এম ব্রিকস এর মালিক মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন ও এমবি এম এর মালিক হাবিবুল্লাহ হাবিবকে পনের লক্ষ করে মোট ত্রিশ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়।

অভিযানের সময় পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর