Logo
শিরোনাম
নারায়নগঞ্জের রূপগঞ্জে

ছাত্রলীগ কর্মী হত্যা মামলার প্রধান আসামিসহ তিনজন গ্রেপ্তার

প্রকাশিত:শনিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ২৮ নভেম্বর ২০২২ |
Image

বুলবুল আহমেদ সোহেল ঃ

নারায়নগঞ্জের রূপগঞ্জের ছাত্রলীগ কর্মী রাকিব হোসেন হত্যা মামলার পলাতক প্রধান আসামি দেলোয়ারসহ তিনজনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। শনিবার বিকেলে র‌্যাব ১১'র মিডিয়া কর্মকর্তা রিজওয়ান সাঈদ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন

গ্রেফতারকৃতরা হলো, শ্রমিক লীগের নেতা দেলোয়ার তার সহযোগি সজিব মিয়া ও রুবেল হোসেন। তাদের সকলের বাড়ি রূপগঞ্জ উপজেলায়।

র‌্যাব জানায়, রূপগঞ্জ থানাধীন গোলাকান্দাইল এলাকায় আধিপত্য বিস্তার এবং পূর্ব শত্রুতার জেরে গত বুধবার (২১ সেস্পেম্বর) রাতে দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে অতর্কিতভাবে হামলা চালিয়ে এলোপাথারি কুপিয়ে যুবলীগকর্মী রাকিবকে হত্যা করে। পরে নিহতের বোন আখি আক্তার বাদী হয়ে হত্যা মামলা করেন। ঘটনার পরপরই হত্যাকারীরা আত্মগোপন করে। র‌্যাব মামলার আসামীদের গ্রেফতারে গোয়েন্দা নজরধারী শুরু করে।

র‌্যাব ১১'র মিডিয়া কর্মকর্তা রিজওয়ান সাঈদ জানান, শুক্রবার রাতে বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে মামলার প্রধান আসামি সহ তিনজানকে গ্রেফতার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আসামীরা হত্যায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। পাশাপাশি হত্যাকান্ডে জড়িত অন্যান্য পলাতক আসামীদের গ্রেফতারে অভিযান চলমান রয়েছে।


আরও খবর



রাঙ্গামাটি লংগদুর কাপ্তাই হ্রদে 

স্পিড বোট ও বালু ভর্তি ইঞ্জিন চালিত বোর্টের সংর্ঘষে ৭জন আহত ও ২ জন নিখোঁজ

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৪ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২ |
Image

উচিংছা রাখাইন কায়েস, রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি 

রাঙ্গামাটির লংগদুর কাট্টলী বিল গাছখিলা এলাকায় কাপ্তাই হ্রদে যাত্রীবাহী স্পীড বোট ও বালু ভর্তি ইঞ্জিন চালিত বোর্টের সাথে সংর্ঘষে ৭জন আহত ও ২ জন নিখোঁজ রয়েছে। শুক্রবার (৪ নভেম্বর) দুপুরে ৩টার দিকে এই দূর্ঘটনাটি ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়, শুক্রবার দুপুরে রাঙ্গামাটি থেকে যাওয়ার পথে লংগদুর কাট্টলী বিল গাছখিলা এলাকায় কাপ্তাই হ্রদে যাত্রীবাহী স্পীড বোট ও বালু ভর্তি ইঞ্জিন চালিত বোর্টের সংর্ঘষ হয়। এতে স্পীড বোটে থাকা ৯জনের মধ্যে ২জন পানিতে তলিয়ে যায়। অন্যদের স্থানীয় উদ্ধার করে পাড়ে নিয়ে আসা হয়। স্থানীয় আরো জানান, যাত্রীবাহী স্পীড বোটের চালকের চোখে চলন্ত অবস্থায় ময়লা পড়ার কারণে চোখ পরিস্কার করতে গিয়ে হঠাৎ বালু ভর্তি ইঞ্জিন চালিতে বোর্টের সাথে সংর্ঘষ হয়। এসময় যাত্রীবাহী স্পীড বোটে ৯জন যাত্রী ছিলো। এর মধ্যে ২জন যাত্রী পানিতে তলিয়ে যায়। এতে যাত্রীবাহী স্পীড বোটের এক অংশ ব্যাপক ক্ষতি সাধিত হয়। 

নিখোঁজ যাত্রীরা হলেন, লিটন চাকমা (২০) পিতা মুক্ত লাল চাকমা, গ্রাম-কেংড়াছড়ি বাঘাইছড়ি, এলিনা চাকমা মহিলা (২০) পিতা-সুরুত চাকমা, গ্রাম-হাজাছড়া সুবলং বরকল। তারা সিজকে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের এইচএসসি পরীক্ষার্থী বলে জানা গেছে। 

দূর্ঘটনার খবর পেয়ে লংগদু ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা এসি ল্যান্ট জনি রায়, লংগদু থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আরিফুল আমিনসহ আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ঘটনাস্থলে গিয়ে নিখোঁজ দুই ব্যক্তির উদ্ধার কাজ চালাচ্ছে বলে জানিয়েছে তারা।


আরও খবর



দুরন্ত বিপ্লবের মরদেহ উদ্ধার

প্রকাশিত:রবিবার ১৩ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২ |
Image
বুড়িগঙ্গা থেকে আওয়ামী লীগ নেতা

বুলবুল আহমেদ সোহেলঃ

বুড়িগঙ্গা নদীর দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ এলাকা থেকে শনিবার বিকেলে উদ্ধার হওয়া লাশটি আওয়ামী লীগের কৃষি ও সমবায়বিষয়ক কেন্দ্রীয় উপ–কমিটির সদস্য দুরন্ত বিপ্লবের (৫১)। তিনি জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক। তাঁর বাড়ি নেত্রকোনার পূর্বধলা থানার ইলাশপুর গ্রামে। তিনি কেরানীগঞ্জে ভাড়া থাকতেন।

এ বিষয়ে পাগলা নৌ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক (এসআই) শাহজাহান আলী বলেন, গতকাল দুপুর আড়াইটার দিকে নদীর তীরে লাশ দেখতে পেয়ে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়। ধারণা করা হচ্ছিল, লাশটি তিন থেকে চার দিন আগের। লাশটি নদীর তীরে আটকে ছিল। লাশ পচে ফুলে গেছে। 

আজ দুপুরে লাশের ময়নাতদন্ত শেষে চিকিৎসক মফিজুল উদ্দিন প্রধান বলেন, আওয়ামী লীগ নেতা দুরন্ত বিপ্লবকে মাথায় ও বুকে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। করে হত্যা করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে বলা যায় আঘাত জনিত কারণেই তার মৃত্যু হয়েছে।

ময়নাতদন্তের সময় মর্গের বাইরে ছিলেন নিহত দুরন্ত বিপ্লবের ছোট ভাই দুর্জয় বিপ্লব ও তাঁর স্ত্রী নাহিদা ইসলাম। তারা জানান, ৭ নভেম্বর সন্ধ্যায় কেরানীগঞ্জের ভাড়া বাসা থেকে মোহাম্মদপুরের জাপান গার্ডেন সিটির বাসায় যাওয়ার পথে নিখোঁজ হন দুরন্ত বিপ্লব। তাঁর মুঠোফোন বন্ধ পাওয়া যায়। অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে ৯ নভেম্বর তাঁরা দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।

দুর্জয় বিপ্লব বলেন, চার বছর আগে তাঁর ভাই চার বন্ধুর সঙ্গে মিলে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে একটি কৃষি খামার করেছিলেন। তাঁর বাড়ি নেত্রকোনার পূর্বধলা থানার ইলাশপুর গ্রামে। তিনি কেরানীগঞ্জে ভাড়া থাকতেন।

নৌ পুলিশের এসপি রীনা মাহামুদ জানান, শনিবার রাত ১২টার দিকে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় লাশের ছবি দেখে সেটি নিখোঁজ দুরন্ত বিপ্লবের বলে শনাক্ত করেন তাঁর ছোট বোন শাশ্বতী বিপ্লব। দুরন্ত বিপ্লব ৭ নভেম্বর থেকে নিখোঁজ ছিলেন। এই ঘটনায় দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় তাঁর পরিবার একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছিল। প্রাথমিক একটি তথ্য জানা গেছে খেয়া পারা পারের নৌকায় দেখেছিল মানুষ। দুটি নৌকার সংঘর্ষে একটি নৌকা থেকে ৫ জন পড়ে গিয়েছিল সেখানে একজন নিখোঁজ ছিল। এই ঘটনারও শিকার হতে পারেন। আবার ময়না তদন্তের পর নিহতের মাথায় ও বুকে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। পরিবারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে তদন্ত স্বাপেক্ষে আসল রহস্য উদঘাটন করতে পারবেন বলে তিনি আশাবাদ ব্যাক্ত করেন। 


আরও খবর

কর্মবিরতিতে নৌযান শ্রমিকরা

রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২




আধ্যাত্মিক শক্তি লাভের জন্য নারীর কবর খুড়তে গিয়ে যুবক আটক

প্রকাশিত:বুধবার ০২ নভেম্বর 2০২2 | হালনাগাদ:রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২ |
Image

শহিদুল ইসলাম জি এম মিঠন, স্টাফ রির্পোটারঃ


আধ্যাত্মিক শক্তি লাভের জন্য এক নারীর কবর খুড়তে গিয়ে এক যুবক আটক। এলাকার লোকজনের মাঝে চাঞ্চল্যকর সৃষ্টিকারি এ ঘটনাটি ঘটেছে নওগাঁর সাপাহার উপজেলার বাখরপুর "তালতলা" গ্রামে।

স্থানীয় সূত্রে জানাযায়, নওগাঁর সাপাহার উপজেলার বাখরপুর "তালতলা" গ্রামের আমিন সরেন এর স্ত্রী তালামনি টুডু গত সোমবার ৩১ অক্টোবর রাত ১০ টারদিকে মৃত্যুবরণ করেন। পরের দিন মঙ্গলবার ১ নভেম্বর বিকেল ৩ টারদিকে ধর্মীয় বিধি মোতাবেক বাড়ি হতে প্রায় হাফ কিলোমিটার দূরে নির্ধারিত আদিবাসী সম্প্রদায়ের সমাধিস্থলে তার দাফনকার্য সম্পূন্ন করেন স্বজনরা। ঐ দিনই রাত ৯ টারদিকে মৃত তালামনি টুডু'র এর ছেলে মন্দন সরেন লোক মুখে জানতে পারেন, কে যেন তার মায়ের কবরে মাটি খুড়ছে। এমন খবর পেয়ে মন্দন সরেন লোক জন নিয়ে সমাধিস্থলের দিকে রওনা দেন। এসময় একই পথে বিপরিদ দিক থেকে শরীরে কাঁদামাটি মেখে উজ্জল টুডু (২০) নামের এক যুবককে আসতে দেখতে পান তারা। এক পর্যায়ে যুবক উজ্জল টুডু কে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করলে উজ্জল টুডু তাদেরকে জানান, আধ্যাত্মিক শক্তি "লাভ" অর্জন করার জন্য তালামনি টুডু'র কবর খুঁড়ে মাটি তুলে তার শরীরে তিনি মেখেছেন। যুবক উজ্জল টুডু'র এমন কথা শুনে স্থানীয় লোকজন সহ নিহতের ছেলে মন্দন সরেন তার মায়ের সমাধিস্থলে গিয়ে দেখতে পায় কবরের মাঝখানে প্রায় এক ফুট গর্ত করে মাটি খোঁড়া হয়েছে। পরে '৯৯৯' নম্বরে ফোন দিয়ে ঘটনাটি জানালে সাপাহার থানা পুলিশ রাতেই ঘটনাস্থলে পৌছে যুবক উজ্জল টুডু কে আটক করে থানা হেফাজতে নেয়।

এঘটনায় অনুভূতি তে আঘাত দেওয়ার অভিযোগে থানায় মামলা করেন মন্দন সরেন। মামলার পর উজ্জল টুডুকে গ্রেফতার দেখিয়ে বুধবার ২ নভেম্বর বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে নওগাঁ জেল হাজতে প্রেরণ করেন সাপাহার থানা পুলিশ।

যুবককে আটক সহ মামলার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন

সাপাহার থানার ওসি (তদন্ত) হাবিবুর রহমান 


আরও খবর



নওগাঁয় "মানবতার দেয়াল" এর উদ্বোধন

প্রকাশিত:সোমবার ০৭ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২ |
Image

শহিদুল ইসলাম জি এম মিঠন, স্টাফ রির্পোটারঃ


মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটি নওগাঁ জেলার উদ্যোগে নওগাঁয় "মানবতার দেয়াল" এর উদ্বোধন করা হয়েছে। শনিবার ৫ নভেম্বর 

নওগাঁ জেলা সদর উপজেলা পাহাড়পুর বাজারে "মানবতার দেয়াল" এর উদ্বোধন করেন মানবিক বাংলাদেশ সোসাইটি নওগাঁ জেলার সভাপতি নাহিদুজ্জামান রনি। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, বক্তারপুর ইউনিয়ন আওয়ামিলীগের সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোস্তাকিম, আওয়ামীলীগ নেতা হেলাল হোসেন (ডাবলু), বক্তারপুর ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক ও মানবিক সৈনিক মাহবুবুর রহমান রুমন, পাহাড়পুর ওয়ার্ড আওয়ামিলীগের সাধারণ সম্পাদক হাকিম, আওয়ামিলীগ নেতা শাহিন, বক্তারপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগ নেতা মানবিক সৈনিক রাব্বি, বাবু শাহ সহ আরো গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।


আরও খবর



ইউক্রেনে যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তা

প্রকাশিত:সোমবার ০৭ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২ |
Image

রাশিয়ার আক্রমণের বিরুদ্ধে ইউক্রেনকে লড়াইয়ে সহযোগিতায় এখন পর্যন্ত মার্কিন সহযোগিতা সর্বদলীয় সমর্থন পাচ্ছেন। কিন্তু পরিস্থিতি পাল্টাচ্ছে। প্রতিনিধি পরিষদের সংখ্যালঘু নেতা কেভিন ম্যাককার্থি বলেছেন, মধ্যবর্তী নির্বাচনে রিপাবলিকানরা সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলে ইউক্রেনীয়দের আর ‘ব্ল্যাংক চেক’ দেওয়া হবে না।

সিনেটের সংখ্যালঘু নেতা মিচ ম্যাককনেল ইউক্রেনকে সহযোগিতা দেয়ার সমর্থক। তবে তিনি বলেন, দলের নেতাদের মধ্যে কিছুটা অনীহা বাড়ছে। কারণ ধীরে ধীরে অতিরিক্ত সহযোগিতার প্রতি জনগণের বিরুপ মনোভাব বাড়তে শুরু করেছে। ২৪শে মে ইউক্রেনের জন্য কয়েকশ’ কোটি ডলারের সামরিক সহযোগিতা পাঠানোর প্রস্তাবের বিপক্ষে ১১ রিপাবলিকান ভোট দেওয়ার পর মিজৌরির সিনেটর জশ হাউলি বলেন, রিপাবলিকানদের জাতীয়তাবাদের দল হওয়া উচিত, কোনও জাতি গঠনের নয়। সম্প্রতি এক জরিপে দেখা গেছে ৫৯ শতাংশ মার্কিন নাগরিক ইউক্রেনে সহযোগিতা পাঠানোর পক্ষে এবং বিপক্ষে ৪১ শতাংশ।


আরও খবর

থাইল্যান্ডে গাড়িবোমা বিস্ফোরণ

মঙ্গলবার ২২ নভেম্বর 20২২

হেরে গেলেন মাহাথির

রবিবার ২০ নভেম্বর ২০22