Logo
শিরোনাম

দেশে করোনার নতুন ধরন শনাক্ত

প্রকাশিত:Sunday ০১ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

বাংলাদেশে আসা কোয়ারেন্টিনে থাকা একজন চীনা নাগরিকের নমুনায় করোনার নতুন উপধরন বিএফ পয়েন্ট সেভেন শনাক্ত হয়েছে। তার নমুনার জিনোম সিকোয়েন্স করে তা চিহ্নিত করে রোগতত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান আইইডিসিআর।

আজ দুপুরে তা নিশ্চিত করেন প্রতিষ্ঠানটির পরিচালক ডা. তাহমিনা শিরীন। আক্রান্ত নাগরিকরা সুস্থ আছেন বর্তমানে। স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, মহাখালীর ডিএনসিসি হাসপাতালে কোয়ারেন্টিনে থাকা চার চীনা নাগরিকের নমুনার জিনোম সিকোয়েন্স করে একজনের শরীরে বিএফ-৭ শনাক্ত হয়েছে। বাকি তিনজনের মধ্যে দুজনের ওমিক্রন বিএ ৫.২ উপধরন এবং আরেকজনের বিএ ৫.২.১ উপধরন শনাক্ত হয়েছে। 


আরও খবর



ধামরাইয়ে বাসের ধাক্কায় চিতাবাঘ নিহত

প্রকাশিত:Monday ১৬ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Friday ০৩ February ২০২৩ |
Image

মাহবুবুল আলম রিপন, স্টাফ রিপোর্টার :


ঢাকার ধামরাইয়ে বাথুলী বাস স্ট্যান্ডে দ্রুতগামী বাসের ধাক্কায় নিহত হয়েছে এক চিতাবাঘ। রোববার ১৫ (জানুয়ারি) দিনগত রাত সাড়ে ৮টার দিকে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের  ধামরাইয়ের বাথুলী বাসস্ট্যান্ডের পশ্চিম পাশে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে বলে নিশ্চিত করেছেন এলাকাবাসী। মানুষের ধারণা সুন্দরবন থেকে ঢাকার ধামরাইয়ে আমতা ইউনিয়নের  বাউখন্ড এলাকায় জিন্দাপী কালু-গাজীর দরাগাহে দরশন দিতে  এ বাঘটি এসেছে অথবা পাচারকালে বণ্যপ্রাণী পাচারকারি চক্রের হেফাজত থেকে চিতাবাঘটি পালিয়ে আত্মরক্ষা করতে গিয়ে বাসের ধাক্কায় প্রাণ হারিয়েছে। প্রতিবছরই ঢাকার ধামরাইয়ে ২-৪টি বাঘ আটক কিংবা মারা যাওয়ার ঘটনা ঘটে থাকে। জনশ্রুতি রয়েছে উপজেলার আমতা  ইউনিয়নের বাউখন্ড এলাকায় ইতিহাসখ্যাত জিন্দাপীর কালু-গাজীর দরগাহে তাদের ভক্ত সুন্দর বনের বাঘ জিয়ারত করতে আসে। আর ফিরে যাওয়ার পথে হয় তাদের মৃত্যু ঘটে না হয় জনতার হাতে আটক হয়।

এলাকাবাসী জানান,রোববার দিনগত রাত অনুমান সাড়ে ৮টার দিকে বাঘটি বাথুলী বাসস্ট্যান্ডের পশ্চিম পাশে ঢাকা-আরি মহাসড়কের উত্তর প্রান্ত থেকে দক্ষিণ প্রান্তে পার হচ্ছিল। ঠিক এসময় দ্রুতগতিসম্পন্ন ঢাকা-গামী একটি ঘাতক বাসের ধাক্কায় ওই চিতা বাঘটি মহাসড়কের ওপর পড়ে যায় এবং গুরুতর আহত হয়। মহাসড়কের দু’পাশ থেকেই থেমে যায় সবধরণের যান ও পরিবহণ। মানুষজন দ্রুত ওই বাঘটি রাস্তার পাশে নিয়ে সেবাযত্ন  করেন বাঁচানোর জন্য। কিন্ত শেষ পর্যন্ত ওই বাঘটিকে বাঁচানো গেলনা। বাঘটি এক দীর্ঘ্য নিস্বাস ছেড়ে চলে যায় না ফেরার দেশে। বাঘ হিংস্র  প্রাণী হলেও তার প্রতি মানুষের মমত্ববোধের একটুও  কমতি ছিলনা। আর এসময় বাঘটিও মানুষের দিকে ফ্যাল ফ্যাল করে তাকিয়ে দু’চোখের পানি ফেলছিল। আর এদৃশ্য অবলোকন করে মানুষের দু’চোখেও নেমে এসেছিল ছলছল পানি।

মোঃ আলাউদ্দিন নামে এক ব্যক্তি বলেন,বাঘটির মারা যাওয়ার করুণ দৃশ্য আমি আামর নিজ চোখে দেখেছি এবং তাকে বাঁচানোর জন্য সবধরণের চেষ্টাও করেছি। আমি ভুলেই গিয়েছিলাম বাঘ। আমার বুকের ধন নয়নের মণি আমার ছেলেও কিছুদিন আগে এ মহাসড়কের শ্রীরামপুর এলাকায় দ্রুতগতির বাসের ধাক্কায় মোটরসাইকেল থেকে পড়ে মারা যায়। আজও আমি সে দৃশ্য ভুলতে পারিনি। তাই আমি এলাকার মানুষের সহায়তায় ওই বাঘটি বাঁচানোর চেষ্টা করি। আমার ছেলে আমাকে যেন দূর  থেকে বলছিল বাবা তুমি ওই বাঘটিকে বাঁচাও তাহলে আমার আত্মাও শান্তি পাবে।

ডা. দেওয়ান মোহাম্মদ ফজলুর রহমান সবুজ বলেন,আমরা বাপ-দাদার আমল থেকে শুনে আসছি প্রতিবছরই নাকি জিন্দাপীর কালু-গাজীর দরগাহে বাঘভক্তরা দরশন দিতে আসে। আর প্রতিবছরই জনতার হাতে ধরা পড়ে অথবা মৃত্যবরণ করে এবাঘ। সড়ক দুর্ঘটনায় আহত বাঘটি আলাউদ্দিনের সহায়তায় আমরা এলাকাবাসী বাঁচানোর সবধরণের চেষ্টা করেও সফল হইনি। শেষ পর্যন্ত বাঘটি মারা যায়। এলাকাবাসী বাঘটি মাটিচাপা দিয়ে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।


আরও খবর



গজারিয়ায় ভাটেরচর উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:Wednesday ০১ February ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

শাকিল প্রধান,গজারিয়া (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি: 

গজারিয়ায় ভাটেরচর দে এ মান্নান পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান ২০২৩ইং অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার সকাল ১০টা থেকে দিনব্যাপী এই ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক, জাতীয় সংসদ সদস্য, আধুনিক মুন্সীগঞ্জের রূপকার, মুন্সীগঞ্জের মাটি ও মানুষের নেতা এ্যাড. মৃণাল কান্তি দাস, উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গজারিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান রেফায়েত উল্লাহ খান তোতা সিআইপি। বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও রুপালী ব্যাংকের উপ মহাব্যবস্থাপক মোঃ সাখাওয়াত হোসেন এর সভাপতিত্বে এবং বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মুঃ শাহজাহান শিকদার এর সঞ্চালনায় অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, সাবেক উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান অধ্যাপক ফরিদা ইয়াসমিন, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মো: আসাদুজ্জামান, গজারিয়া থানা তদন্ত ওসি মোঃ মুক্তার হোসেন, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ জাকির হোসেন, টেংগারচর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কামরুল হাসান ফরাজী, বাউশিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মিজানুর রহমান প্রধান, হোসেন্দী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মনিরুল হক মিঠু, গুয়াগাছিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী খোকন, ইমামপুর ইউপি চেয়ারম্যান হাফিজুজ্জামান খান জিতু, সাবেক উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কামরুজ্জামান সাগরসহ ম্যানেজিং কমিটির সদস্যবৃন্দ, শিক্ষক শিক্ষিকাবৃন্দ, অভিভাবকগণ ও বিদ্যালয়ের ছাত্র ছাত্রীবৃন্দ।

ক্রীড়া প্রতিযোগিতা শেষে বিজয়ীদের মাঝে প্রধান অতিথি পুরস্কার বিতরণ করেন।


আরও খবর



ভোক্তা পর্যায়ে দাম বাড়লো বিদ্যুতের

প্রকাশিত:Friday ১৩ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

জহীরুল কবির আমজাদ :ভোক্তা পর্যায়ে বাড়ল বিদ্যুতের দাম। ইউনিটপ্রতি বাড়ানো হয়েছে ১৯ পয়সা। ১ জানুয়ারি থেকে নতুন এ দাম কার্যকর করা হবে। একইসঙ্গে এখন থেকে প্রতিমাসে বিদ্যুতের খুচরা দাম নিয়মিত সমন্বয় করা হবে।

১২ জানুয়ারি এক নির্বাহী আদেশে এ দাম বাড়ানো হয়। এর আগে গত ৮ জানুয়ারি বিদ্যুৎ কোম্পানিগুলোর গ্রাহক পর্যায়ে বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধির আবেদনের প্রেক্ষিতে গণশুনানি করেছিল বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (বিইআরসি)।

ওইদিন সকাল ১০টায় রাজধানীর বিয়াম ফাউন্ডেশনের শহীদ এ কে এম শামসুল হক খান অডিটোরিয়ামে ওই গণশুনানি অনুষ্ঠিত হয়। যেখানে জানুয়ারির মধ্যেই এ বিষয়ে সিদ্ধান্তের ইঙ্গিত দিয়েছিলেন বিইআরসি চেয়ারম্যান আবদুল জলিল।

তবে সরকার চাইলে জনসাধারণের কথা বিবেচনায় যে কোনো সময় বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দাম সমন্বয় করতে পারবে। সম্প্রতি এমন বিধান যুক্ত করে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (সংশোধন) আইন, ২০২৩ এর খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ৯ জানুয়ারি নবনিযুক্ত মন্ত্রিপরিষদ সচিব মো. মাহবুব হোসেন জানিয়েছেন, বিদ্যমান আইন অনুযায়ী বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দাম ৯০ দিন সময় নিয়ে নির্ধারণ করে বিইআরসি। তবে বিশেষ পরিস্থিতিতে সরকারও যেন তা নির্ধারণ করতে পারে এ জন্যই প্রস্তাবিত এই সংশোধনী মন্ত্রিসভা অনুমোদন করে।

ইতোমধ্যেই এটি রাষ্ট্রপতির কার্যালয় থেকে অধ্যাদেশ আকারে জারিও করা হয়েছে। তবে ওই সময় জাতীয় সংসদের অধিবেশন চলমান না থাকায় আইনে কার্যকর করা সম্ভব হয়নি। বর্তমানে সংসদের অধিবেশন চালু রয়েছে। তাই নিয়ম অনুযায়ী সংসদে উত্থাপনের জন্য মন্ত্রিসভায় আইনটি অনুমোদন করে নেওয়া হয়েছে।


আরও খবর

সুখবর নেই বাজারে

Saturday ০৪ February ২০২৩




সোনারগাঁওয়ে ৫১ তম জাতীয় স্কুল ও মাদ্রাসা খেলাধুলার পুরস্কার বিতরন

প্রকাশিত:Monday ১৬ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

শাহাদাৎ হোসেন সায়মন (সোনারগাঁও প্রতিনিধি) :

সোনারগাঁও উপজেলার মেঘনা শিল্প নগরী স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে বাংলাদেশের ৫১ তম জাতীয় স্কুল মাদ্রাসা খেলাধুলার পুরস্কার বিতরনী অনুষ্টান অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত অনুষ্টানে এডঃ সামসুল ইসলাম ভূইয়ার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয়  সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকা, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ রেজাওয়ান উল ইসলাম, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহমুদা আক্তার, সোনারগাঁও উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ সভাপতি পিরোজপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাসুদুর রহমান মাসুম, জেলা পরিষদ সদস্য আবু নাইম ইকবাল, নোওয়াগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শামসুল ইসলাম সামসু। এছাড়াও আরো উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদের বিভিন্ন কর্মকর্তাগন বিভিন্ন স্কুল মাদ্রাসার শিক্ষকগণ এবং ছাত্রছাত্রীবৃন্দসহ প্রিন্ট ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকগন উপস্থিত ছিলেন। এসময় খেলাধুলায় বিজয়ীদের হাতে উপস্থিত অতিথিবৃন্দ পুরষ্কার তুলে দেন।

সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকা বলেন, মাদক সন্ত্রাস ইভটিজিং জঙ্গিবাদ থেকে নিজেদের সন্তান এবং নিজেদেরকে বাঁচিয়ে সুশিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে সুস্থ দেহের জীবন-যাপন করা প্রতিটি শিক্ষার্থীর উচিত লেখাপড়ার পাশাপাশি ক্রীড়া সংস্কৃতিতে মনযোগী হওয়া।  নিজের প্রতিভাকে কাজে লাগিয়ে নিজেকে পৃথিবীতে শ্রেষ্ঠ মানুষ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে হবে।

চেয়াম্যান মাসুদুর রহমান মাসুম বলেন, তোমারা ফেইজবুক কম ব্যবহার করবে তাহলে তোমার লেখাপড়া এগিয়ে নিয়ে যেতে পাড়বে।তোমাদের তোমার মা বাবার আশা তোমরা সুশিক্ষিত হও। তোমাদের খেলাধুলার জন্য যা কিছু দরকার আমি যতদিন আছি তোমাদের পাশে থাকবো।


আরও খবর



৬২ বছর পর ব্রাইটনের কাছে বিধ্বস্ত লিভারপুল

প্রকাশিত:Sunday ১৫ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

প্রিমিয়ার লিগে পরপর দুই ম্যাচে তিনটি করে গোল খেয়ে পরাজয়ের বৃত্তে লিভারপুল। লিগে আগের ম্যাচেই ব্রেন্টফোর্ডের কাছে ৩-১ গোলে হেরেছিল লিভারপুল। এবার একই লজ্জায় অলরেডদের ডুবালো ব্রাইটন। ১৯৬১ সালের পর প্রথমবারের মতো লিগে ব্রাইটনের কাছে হারতে হল লিভারপুলকে। শনিবার (১৪ জানুয়ারি) নিজেদের মাঠে লিভারপুলকে ৩-০ গোলে হারিয়েছে ব্রাইটন। ম্যাচের সব কয়টি গোলই হয়েছে দ্বিতীয়ার্ধে।

বল দখল, আক্রমণ, গোলে ও লক্ষ্যে শট- প্রতিটি ক্ষেত্রেই লিভারপুলকে টেক্কা দিয়েছে ব্রাইটন। অবশ্য শুধু টেক্কা দেয়নি, বেশ বড় ব্যবধানেই এগিয়ে ছিল ব্রাইটন। ম্যাচের অষ্টম মিনিটে ব্রাইটন এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়েছিল ব্রাইটন।

ম্যাক অ্যালিস্টারের পাসে ডান দিক থেকে নিচু শট নিয়েছিলেন ব্রাইটন ফুটবলার মার্স। তবে তাতে লিভারপুল গোলরক্ষক অ্যালিসন বেকার পরাস্ত হলেও গোললাইন থেকে ক্লিয়ার করে লিভারপুলের দুর্গ অক্ষত রাখেন ট্রেন্ট অ্যালেকজান্ডার-আর্নল্ড। এরপর বিরতির আগে আরও দুইটি সুযোগ হাতছাড়া করে ব্রাইটন। প্রথমার্ধ শেষ হওয়ার আগ মুহূর্তে পেনাল্টি পেয়েছিল ব্রাইটন। তবে ভিএআরে দেখে পেনাল্টির সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করেন রেফারি। তবে প্রথমার্ধে গোল না পেলেও দ্বিতীয়ার্ধের শুরুর আট মিনিটের মধ্যে জোড়া গোল করে লিভারপুলকে ব্যাকফুটে ফেলে দেয় ব্রাইটন।

বিরতি থেকে ফেরার পর ম্যাচের ৪৬তম মিনিটে কাছের পোস্ট থেকে দুর্দান্ত শটে ব্রাইটনকে প্রথম লিড এনে দেন মার্চ। সাত মিনিটের ব্যবধানে আবারও গোলদাতা সেই মার্চ। ফার্গুসনের পাস নিয়ে বক্সে ঢুকে বাঁ পায়ের শটে বল দূরের পোস্ট দিয়ে লক্ষ্যভেদ করেন তিনি। ম্যাচের ৮১তম মিনিটে লিভারপুলের কফিনে শেষ পেরেক মারেন ওয়েলবেক।

থ্রো থেকে মার্চের বাড়ানো পাসে দারুণভাবে ফ্লিক করে গোল করেন তিনি। ম্যাচের বাকি সময়ে লিভারপুল একাধিক চেষ্টা করেও গোল ব্যবধান কমাতে পারেনি। শেষ পর্যন্ত অলরেডদের বিপক্ষে ৩-০ গোলের ব্যবধানে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ব্রাইটন। এর আগের লেগেও লিভারপুলের বিপক্ষে ৩-১ গোলের ব্যবধানে জিতেছিল তারা।

এখন পর্যন্ত ১৮ ম্যাচে ৯ জয় ও ৩ ড্রয়ে ৩০ পয়েন্ট নিয়ে এখন সাত নম্বরে রয়েছে ব্রাইটন। সমান ম্যাচে ২৮ পয়েন্ট নিয়ে আটে আছে লিভারপুল। ১৭ ম্যাচে ৪৪ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে আর্সেনাল।


আরও খবর