Logo
শিরোনাম

এশিয়া কাপের দল ঘোষণা ভারতের

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ |
Image

সোমবার রাতের দিকে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নদের এশিয়া কাপ শিরোপা ধরে রাখার দল যখন প্রকাশ করল বিসিসিআই, তখন সে দুঃসংবাদটা জানা গেল আনুষ্ঠানিকভাবে। চোটের কারণে নেই যশপ্রীত বুমরাহ। বিশ্রাম থেকে ফিরেছেন বিরাট কোহলি। 

পিঠের চোটের কারণে খেলতে পারবেন না এই টুর্নামেন্টে। বোর্ডের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, বুমরাহ এখনও চোট কাটিয়ে সুস্থ হতে পারেননি। এই মুহূর্তে তিনি আছেন বেঙ্গালুরুর জাতীয় ক্রিকেট অ্যাকাডেমিতে, সেখানে চলছে তার সেরে ওঠার লড়াই। সঙ্গী হিসেবে আছেন হার্শাল পাটেল, তিনিও চোটের কারণে নেই ভারতীয় দলে। তবে তাদের সঙ্গে আরেক অভিজ্ঞ ক্রিকেটারকেও দলে রাখেনি ভারত। মোহাম্মদ শামিকে রাখা হয়নি স্কোয়াডে।

এদিকে এই টুর্নামেন্ট দিয়ে ভারতীয় দলে ফিরছেন বিরাট কোহলি। ইংল্যান্ড সফরের পর থেকে তাকে টানা দুই সিরিজে ‘বিশ্রাম’ দিয়েছে বিসিসিআই। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে ছিলেন না তিনি, থাকবেন না আসন্ন জিম্বাবুয়ে সফরেও।

ব্যাটিংয়ে তেমন চমক না থাকলেও বোলিং বিভাগে চমক দিয়েছেন ভারতীয় নির্বাচকরা। দলে আছেন পেসার আর্শদীপ সিং, আবেশ খান আর লেগ স্পিনার রবি বিষ্ণোই। অভিজ্ঞ রবিচন্দ্রন অশ্বিনও আছেন ভারতের ১৫ সদস্যের এই দলে।

স্ট্যান্ডবাই হিসাবে দলে আছেন শ্রেয়াস আইয়ার। আরও দুই স্ট্যান্ডবাই ক্রিকেটার হিসাবে দীপক চাহার এবং অক্ষর পাটেলের নাম ঘোষণা করা হয়েছে।

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জানাচ্ছে, এশিয়া কাপের দলটাকেই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে রেখে দেবে ভারত। খুব বাজে পারফর্ম্যান্স বা চোটে না পড়লে দুই একটার বেশি পরিবর্তন আসবে না এই দলে। সেটা না হলে এই খেলোয়াড়রাই ভারতের জার্সি গায়ে চড়িয়ে খেলবেন অস্ট্রেলিয়ার বুকে অনুষ্ঠেয় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে।

এশিয়া কাপের ১৫ সদস্যের ভারতীয় দল: রোহিত শর্মা (অধিনায়ক), লোকেশ রাহুল (সহ-অধিনায়ক), বিরাট কোহলি, সূর্যকুমার যাদব, দীপক হুদা, ঋষভ পান্ত, দীনেশ কার্তিক, হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাডেজা, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, যুজবেন্দ্র চাহাল, রবি বিষ্ণোই, ভুবনেশ্বর কুমার, অর্শদীপ সিং এবং আবেশ খান।


আরও খবর

বিশ্বকাপ নিশ্চিত নারী ক্রিকেট দলের

শনিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২

মুকুট নিয়ে আজ ফিরছে বাঘিনীরা

বুধবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২২




কু‌মিল্লা চা‌ন্দিনায় গ্রামীণ অবকাঠামোর প্রকল্পের কাজ

লটারীর মাধ্যমে চেয়ারম্যান মেম্বারদের বিতরণ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ |
Image

নিজস্ব প্রতি‌বেদক , কু‌মিল্লা  :

গ্রামীণ অবকাঠা‌মো সংস্কার কা‌বিখা, কা‌বিটা ও গ্রামীণ অবকাঠা‌মো রক্ষণা‌বেক্ষণ টিআর কর্মসূচীর আওতায় প্রকল্প গ্রহণ প্রকল্প বাস্তবায়ন ক‌মি‌টি গঠন ও প্রকল্প বাস্তবায়ন বিষ‌য়ে এক মত‌বি‌নিময় অনু‌ষ্ঠিত হয়ে‌ছে। এ‌তে প্রধান অ‌তি‌থির বক্তব‌্য রা‌খেন কু‌মিল্লা ৭ চা‌ন্দিনার সংসদ সদস‌্য বীরমু‌ক্তি‌যোদ্ধা ডাঃ প্রাণ গোপাল দত্ত।           

                                          মঙ্গলবার সকাল ১১টায় জেলার চা‌ন্দিনা উপ‌জেলার অ‌ডিট‌রিয়া‌মে দূ‌র্যোগ ব‌্যবস্থাপনা অ‌ধিদপ্ত‌রের আ‌য়োজ‌নে উপ‌জেলা নির্বাহী অ‌ফিসার তাপস চন্দ্র শীল এর সভাপ‌তি‌ত্বে অনু‌ষ্ঠিত মত‌বি‌নিময় সভায় বক্তব‌্য রা‌খেন চা‌ন্দিনা উপ‌জেলা চেয়ারম‌্যান বীরমু‌ক্তিযোদ্ধা তপন বকসী , পৌরসভার মেয়র শওকত আলী ভূইয়া, ম‌হিলা ভাইস চেয়ারম‌্যান সা‌ফিয়া আক্তার,প্রকল্প কর্মকর্তা দেবেস চন্দ্র দাস।  মত‌বি‌নিময় সভায় চ‌া‌ন্দিনা উপ‌জেলার ১৩‌টি ইউ‌নিয়ন প‌রিষ‌দের চেয়ারম‌্যান, মেম্বার ও পৌরসভার কাউ‌ন্সিলাররা অংশ নেন। প‌রে কোন রকম তদবির ও রাজনৈতিক হস্তক্ষেপ ছাড়াই   গ্রামীন অবকাঠামোর প্রকল্পের কাজ সরাসরি লটারীর মাধ্যমে চেয়ারম্যান মেম্বার ,কাউ‌ন্সিলদের বিতরণ করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত।  এসময় তিনি ব‌লেন জনগ‌ণের টাকায় যেন উন্নয়ন কর্মকান্ড গু‌লো টেকসই উন্নয়ন কর্মকান্ড প‌রিচালনার আহবান জানান।


আরও খবর



রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার কৃতি খেলোয়াড়দের সংবর্ধনা

প্রকাশিত:শনিবার ০৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ |
Image

উচিংছা রাখাইন কায়েস, রাঙ্গামাটি :

পার্বত্য অঞ্চল থেকে খেলোয়াড় তৈরী করতে হলে আমাদেরকে আরো বেশী খেলাধুলার আয়োজন করতে হবে বরে জানিয়েছেন রাঙ্গামাটি সংসদ সদস্য ও খাদ্য মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি দীপংকর তালুকদার এমপি। 

শনিবার (৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রাঙ্গামাটি হলিডে কমপ্লেক্স হল রুমে রাঙ্গামাটি জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার কৃতি খেলোয়াড়দের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। 

সংবর্ধন অনুষ্ঠানে রাঙ্গামাটি জেলা প্রশাসক ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি মোহাম্মদ মিজানুর রহমানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদ সদস্য অংসুইপ্রু চৌধুরী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক মোঃ সাইফুল ইসলাম, রাঙ্গামাটি পৌর মেয়র আকবর হোসেন চৌধুরী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সদর সার্কেল মোঃ জাহিদুল আলম।


সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে রাঙ্গামাটির ৭ জন ক্রীড়া বিদকে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়। 

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে রাঙ্গামাটি সংসদ সদস্য ও খাদ্য মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি দীপংকর তালুকদার এমপি আরো বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার সবসময়ই খেলাধূলাকে গুরুত্ব দেয় এবং আমরা চাই এই খেলাধূলার মধ্যদিয়েই আমাদের ছেলে-মেয়েরা এগিয়ে যাক। যাতে করে খেলাধূলার মাধ্যমে আগামীতে নতুন প্রজন্মের খেলোয়াড়রা যেন যোগ্য হয়ে গড়ে উঠতে পারে। তাই খেলাধূলার মধ্যদিয়ে পার্বত্য এলাকায় যাতে করে আরো বেশী খেলোয়ার সৃষ্টি ও এইসব খেলোয়াড়রা সুনাম বয়ে আনতে সেটাই আমাদের সবার প্রত্যাশা।


আরও খবর

বিশ্বকাপ নিশ্চিত নারী ক্রিকেট দলের

শনিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২

মুকুট নিয়ে আজ ফিরছে বাঘিনীরা

বুধবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২২




আপত্তিকর ভিডিও ধারণ করে ব্লাকমেইল

মোরেলগঞ্জে ধর্ষণ মামলায় টিকটক বয় শোভন গ্রেফতার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০১ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ |
Image

এম.পলাশ শরীফ, নিজস্ব প্রতিবেদক : 

বাগেরহাটে মোরেলগঞ্জে মেয়েদের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে আপত্তিকর ভিডিও ধারণ করে বøাকমেইলিং করে ধর্ষণের অভিযোগে টিকটিক বয় হিসেবে পরিচিত সাদিক শোভন (২৪) নামে এক যুবককে আটক করে ধর্ষণ মামলায় বুধবার বাগেরহাট আদালতে প্রেরণ করেছে মোরেলগঞ্জ থানা পুলিশ। যার মামলা নং-২৯,তারিখ-৩০.৮.২০২২।  

থানা সূত্রে জানা গেছে, আটক যুবক শোভন ফেসবুক ও ইমো’র একাধিক অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে নারীদের সঙ্গে প্রথমে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে মধুর আলাপনের মাধ্যমে গভীর প্রেমের সম্পর্কের দিকে চলে যায়। এরপর প্রেমের চুড়ান্ত পর্যায় শারীরিক সম্পর্কের মুহুর্তের ভিডিও আর আপত্তিকর ছবি ধারণ করে পরে তা দিয়ে ব্লাকমেইল করে মোটা অংকের অর্থ দাবি করতো। দাবি অনুযায়ী টাকা না দিলে নানাভাবে হয়রানী করতো ভুক্তভোগী নারী ও তার পরিবারকে।

এমন ভুক্তভোগী এক ছাত্রীর অভিযোগের ভিত্তিতে মো. সাদিক শোভন (২৪) নামের ওই যুবককে মঙ্গলবার রাতে উপজেলা সদর পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ডের কলেজ রোডের ভাড়া বাসা থেকে আটক করে থানা পুলিশ। এসময় তার কাছ থেকে একটি দামী ব্র্যান্ডের মোটরসাইকেল জব্দ করা গেলেও পর্নোগ্রাফির কাজে ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটি জব্দ কর সম্ভব হয়নি।

এলাকায় টিকটিক বয় নামে পরিচিত আটক সাদিক শোভন উপজেলার হোগলাবুনিয়া ইউনিয়নের সানকিভাঙ্গা গ্রামের মৃত, আব্দুল জলিল হাওলাদারের ছেলে।

এ ব্যাপারে মোরেলগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ মো. সাইদুর রহমান জানান, ছাত্রীর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে সাদিক শোভন নামের ওই যুবককে আটক করা হয়। অভিযোগ রয়েছে ওই যুবক মেয়েদের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে এক পর্যায় আপত্তিকর ছবি ও ভিডিও ধারণ করে তাদেরকে ব্লাকমেইলের মাধ্যমে শারীরিক সম্পর্ক ও অর্থ আদায় করে আসছিলো।

থানা অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) শাহজাহান আহম্মদ জানান, ভূক্তভোগী ওই ছাত্রীর দায়ের করা ধর্ষণ মামালায় গ্রেফতার দেখিয়ে আটক সাদিক শোভনকে  আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। 


আরও খবর



যেসব কারণে রক্ত ওঠানামা করে

প্রকাশিত:সোমবার ২৯ আগস্ট ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ |
Image

রক্ত উঠানামা একটি জটিল স্বাস্থ্যগত সমস্যা। কারো কারো ক্ষেত্রে রক্তচাপ খুব অস্বাভাবিক বেড়ে যায়, আবার কখনও রক্তচাপ অস্বাভাবিক কমে যায়। এমনটি কোনো কোনো সময় বিপজ্জনক।

রক্তচাপ উঠানামা করার কারণ ও প্রতিকার নিয়ে বিস্তারিত জানিয়েছেন মেডিনোভা হাসপাতালের কার্ডিওলজি বিভাগের অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. মো. তৌফিকুর রহমান 

রক্তচাপ কেন ওঠানামা করে, রক্তচাপ অনেক কারণে ওঠানামা করতে পারে। কিছু রোগীর কারণে, কিছু খাবারের কারণে, কিছু রক্তচাপ মাপার মেশিনের কারণে, কিছু রক্তচাপ মাপার পদ্ধতিগত সমস্যার কারণে ও পরিবেশগত কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে।

রোগীর কী কী কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করে

রোগী দুশ্চিন্তা করলে রক্তচাপ হঠাৎ খুব বেড়ে যেতে পারে আবার দুশ্চিন্তা কমে গেলে বা নিয়ন্ত্রণে এলে রক্তচাপ স্বাভাবিক হতে পারে। যদিও প্রাথমিকভাবে এই বাড়তি রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণের জন্য সাময়িকভাবে কিছু উচ্চ রক্তচাপের ওষুধ ও দুশ্চিন্তা নিয়ন্ত্রণের ওষুধ লাগতে পারে, পরবর্তীকালে সাধারণত উচ্চ রক্তচাপের ওষুধের আর প্রয়োজন নাও হতে পারে। কোনো কোনো ক্ষেত্রে দুশ্চিন্তা বেশি করলে রক্তচাপ স্বাভাবিকের চেয়ে কমেও যেতে পারে। রোগী যদি দীর্ঘদিন ধরে শরীরের ব্যথা কমানোর ওষুধ বিশেষ করে এনএসএআইডি জাতীয় ওষুধ সেবন করে রোগীর রক্তচাপ বাড়তে পারে বা ওঠানামাও করতে পারে। রোগী যদি নিয়মিত ওষুধ না খায় বা মাঝেমাঝে ওষুধ বাদ দেয় তবে রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে। রোগী যদি দীর্ঘদিন জন্মনিয়ন্ত্রণের ওষুধ খান তবে রক্তচাপ বাড়তে পারে বা ওঠানামা করতে পারে। রোগীর যদি কিডনিতে সমস্যা থাকে তাহলেও রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে। রোগীর যদি কিছু হরমোনজনিত রোগ যেমন হাইপারথাইরয়েডিজম (থাইরয়েড গ্লান্ড থেকে বেশি বেশি থাইরয়েড হরমোন বের হওয়া রোগ) বা ফিওক্রোমোসাইটোমা (কিডনির উপরে অবস্থিত এড্রেনাল গ্লান্ডের টিউমার রোগ) জাতীয় রোগ হয় তবে রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে।

কী কী খাবারের কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করে? অতিরিক্ত কফি পান, চা পান ও ধূমপান করলে রক্তচাপ বাড়তে পারে। রক্তচাপ মাপার মেশিনের তারতম্যের কারণে কি রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে হ্যাঁ, বিভিন্ন প্রকারের রক্তচাপ মাপার মেশিন বিভিন্ন সময়ে ব্যবহারের কারণে রক্তচাপের মান ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে। আবার দেখা যায় অটোমেটিক মেশিনে রক্তচাপ মাপার কয়েক মিনিট পরে আবার রক্তচাপ মাপলে আগের মাপের থেকে ভিন্নতা পাওয়া যায়।

রক্তচাপ মাপার কী পদ্ধতিগত সমস্যার কারণে ও পরিবেশগত কী কী কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করে

রক্তচাপ মাপার মেশিনের সঠিক সাইজ ব্যবহার না করলে, রক্তচাপ মাপার সময় কথা বললে, অনেক পরিশ্রম বা ব্যায়ামের পর রক্তচাপ মাপলে বা হোয়াইট কোট হাইপারটেনশনের কারণে রক্তচাপের মান বেশি আসতে পারে।

হোয়াইট কোট হাইপারটেনশন কী? অনেক রোগী চিকিৎসকের চেম্বারে আসার পর অতিরিক্ত ও অপ্রয়োজনীয় টেনশন বা দুশ্চিন্তায় ভোগেন, ফলে রক্তচাপ অনেক বেড়ে যায়, কিন্তু এসব রোগীর বাসায় বা অন্য সময় রক্তচাপ স্বাভাবিক বা কম থাকে, যেহেতু ডাক্তাররা সাদা এপ্রোন বা কোট পরিধান করে তাই এ সমস্যাকে হোয়াইট কোট হাইপারটেনশন বলে।


সুত্র:  যুগান্তর


আরও খবর

অক্টোবরের ৪ থেকে টিকার প্রথম ডোজ বন্ধ

রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২

করোনায় এক দিনে ৫ জনের মৃত্যু

বুধবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২২




সীমান্তে কাঁটাতার নির্মাণে কাজ করবে দুই দেশ

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ |
Image

বাংলাদেশ-ভারতের ত্রিপুরা থেকে শুরু করে সীমান্তের কাঁটাতারবিহীন অংশে কাঁটাতার নির্মাণের কাজ শেষ করার বিষয়ে একমত হয়েছে দুই দেশ। এছাড়া সীমান্ত রক্ষণাবেক্ষণের জন্য বিজিবি বিএসএফের পদক্ষেপের মাধ্যমে সীমান্তে মৃত্যু কমিয়ে আনা, অস্ত্র, মাদক ও জাল টাকার চোরাচালান এবং পাচার রোধে পারস্পরিক সহযোগিতাও প্রশংসিত হয়েছে। ভারতে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাষ্ট্রীয় সফরে দুই দেশের মধ্যে যৌথ সম্মতিতে নেওয়া হয়েছে সিদ্ধান্তগুলো। কূটনৈতিক সূত্রগুলো এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সম্মিলিতভাবে লড়াইয়ে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ : উভয় নেতাই সন্ত্রাসবাদের সব রূপ ও অভিব্যক্তি নির্মূলে তাদের দৃঢ় অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করেছেন। এই অঞ্চল ও এর বাইরে সন্ত্রাসবাদ, সহিংস চরমপন্থা এবং মৌলবাদের বিস্তার প্রতিরোধে ও সে সম্পর্কিত পদক্ষেপে সহযোগিতা আরো জোরদার করার বিষয়ে সম্মত হয়েছে।

প্রতিরক্ষা ও নিরাপত্তা সহযোগিতা : বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর জন্য যানবাহন সংগ্রহের পরিকল্পনাসহ ৫০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের প্রতিরক্ষা লাইন অব ক্রেডিটের অধীনে প্রকল্পগুলোর প্রাথমিক চূড়ান্তকরণে রাজি হয়েছে। বর্ধিত সামুদ্রিক নিরাপত্তা নিশ্চিতে ২০১৯ সালে স্বাক্ষরিত উপকূলীয় রাডার সিস্টেম সমঝোতা স্মারকের প্রাথমিক কার্যকারিতা চূড়ান্তকরণ।

মানুষ ও পণ্যের স্বাচ্ছন্দ্যপূর্ণ চলাচলের সুবিধা নিশ্চিতকরণ : আন্তর্জাতিক সীমান্তের ১৫০ গজের মধ্যে চলমান উন্নয়নমূলক কাজগুলো দ্রুত সম্পন্ন করার বিষয়ে একমত হয়েছে দুই দেশ, যার মধ্যে চার হাজার কিলোমিটার দীর্ঘ সীমান্তের বিভিন্ন ক্রসিংয়ে গুরুত্বপূর্ণ অভিবাসন ও বাণিজ্য-সম্পর্কিত অবকাঠামো রয়েছে।

আঞ্চলিক সমস্যা : মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্য থেকে জোর করে বাস্তুচ্যুত ১০ লাখেরও বেশি মানুষকে আশ্রয় দেওয়া এবং মানবিক সহায়তা প্রদানে বাংলাদেশের উদারতার প্রশংসা করেছে ভারত। জোর করে বাস্তুচ্যুত এসব লোককে নিরাপদ, টেকসই ও দ্রুত স্বদেশ প্রত্যাবর্তন নিশ্চিতে তারা অব্যাহত প্রতিশ্রুতির ওপর জোর দিয়েছে।

উন্নয়ন সহযোগিতা : বাংলাদেশ ভারত সরকারের সঙ্গে যুক্ত লাইন অব ক্রেডিটের অধীনে, বিশেষ করে গত বছরের তহবিল বিতরণের কার্যকারিতা এবং গতির জন্য ভারতের প্রশংসা করেছে। বাংলাদেশকে প্রায় ১ দশমিক ১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার রেয়াতি ঋণ দেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশ ভারতের শীর্ষ উন্নয়ন সহযোগী। ভারত কর্তৃক অন্যান্য দেশকে দেওয়া সব উন্নয়ন অর্থায়নের প্রায় এক-চতুর্থাংশ বা ২৫ শতাংশ করে বাংলাদেশকে প্রদান করে।

বঙ্গবন্ধু ও ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের চেতনা : বঙ্গবন্ধুর ওপর যৌথভাবে নির্মিত বায়োপিক  শিগগিরই শেষ হবে এবং আগামী বছর মুক্তি পেতে পারে। মুক্তিযুদ্ধের ওপর একটি প্রামাণ্যচিত্রের যৌথ প্রযোজনা এবং দুর্লভ ভিডিও ফুটেজের যৌথ সংকলনে সম্মত হয়েছে উভয় পক্ষ। 


আরও খবর

পঞ্চগড়ে নৌকা ডুবে ২৪ জন নিহত

রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২

এবার ৩২ হাজার মণ্ডপে দুর্গাপূজা

রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২