Logo
শিরোনাম

গাজীপুর-৩ আসনের জনগনকে ঈদ শুভেচ্ছা জানালেন আ.লীগের শীর্ষ নেতারা

প্রকাশিত:Monday ০২ May 2০২2 | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ February ২০২৩ |
Image

সদরুল আইনঃ

      গাজীপুর-৩ আসনের জনগনকে ঈদ উল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন সাংসদ ইকবাল হোসেন সবুজ।

একই সাথে শ্রীপুর উপজেলা আ.লীগের সদ্য নির্বাচিত সভাপতি হুমায়ূন কবির হিমু, যুগ্ম সম্পাদক মাসুদ আলম ভাংগী, পৌর সভাপতি সিরাজুল ইসলাম মেম্বার ও সাধারন সম্পাদক নূর এ আলম মোল্লাও উপজেলা ও পৌরবাসিকে ঈদ উল ফিতরের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন।

তারা বলেন, এক মাস সিয়াম সাধনার পর মুসলিম উম্মাহর সবচেয়ে বড় ধর্মিয় উৎসব উদ উল ফিতর উদযাপিত হবে আগামিকাল মঙ্গলবার।

ঈদ উল ফিতরের এই মাহেন্দ্রক্ষণে ঈদের আনন্দ ভাগ করে নিতে এবং সব ভেদাভেদ ভুলে মানুষ ও মানবতার পাশে নেতা কর্মিদের কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে সহমর্মিতা প্রকাশের জন্য তারা আহবান জানান।

তারা বলেন, ঈদ মুসলিমদের হলেও আনন্দ যেন হয় সবার।মানুষের কল্যানে, মানবতার পাশে থেকে একটি সুন্দর জাতী বিনির্মানে শেখ হাসিনার উন্নয়ন বাস্তবায়নে এবং তার সুফল মানুষের মাঝে ছড়িয়ে দিতে একসাথে কাজ করতে হবে সবায়কে।

অতীতের সব জীর্ণতা শীর্নতাকে পিছনে ফেলে সহমর্মিতা ও একসাথে পথ চলার সোপান রচনা করতে হবে আ.লীগের প্রতিটি নেতা কর্মিকে।ঈদের খুশি থেকে গাজীপুর-৩ আসনের কোন মানুষ যেন বঞ্চিত না হন সেদিকে সর্বদা নজর রাখতে উদাক্ত আহবান জানান সাংসদ ইকবাল হোসেন সবুজ সহ সকল নেতৃবৃন্দ।


আরও খবর



ক্ষতির মুখে আইসিসি

প্রকাশিত:Monday ২৩ January 20২৩ | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ February ২০২৩ |
Image

ইয়াশফি রহমান :বড় ধরনের ক্ষতির মুখে পড়েছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। কমপক্ষে ২৫ লাখ ডলার বা প্রায় ২০ কোটি ৩০ লাখ টাকা ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছে আইসিসি। তবে ক্ষতির সঠিক পরিমাণ এখনও জানা যায়নি। প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে অপরাধটি সংগঠিত হয়েছে আমেরিকা থেকে। যা ২০২২ সালের ঘটনা।

আমেরিকার তদন্তকারী সংস্থা ফেডারেল ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশন (এফবিআই) জানিয়েছে, প্রতারকরা বিজনেস ই-মেল কম্প্রোমাইজ (বিইসি) বা ই-মেল অ্যাকাউন্ট কম্প্রোমাইজ ব্যবহার করেছে। অনলাইন অপরাধের সব থেকে ক্ষতিকারক পদ্ধতি বলে জানিয়েছেন তদন্তকারীরা। যদিও আইসিসির বরাত দিয়ে এখনো এই ঘটনা নিয়ে কোনও কিছু বলা হয়নি।

প্রতারকরা আইসিসির অ্যাকাউন্ট থেকে ঠিক কী ভাবে টাকা সরিয়ে নিয়েছে তা এখনও জানা যায়নি। দুবাইয়ে সংস্থার সদর দফতরের কোনও কর্মী এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত কিনা, তাও স্পষ্ট নয়। আইসিসির সঙ্গে যুক্ত অন্য কোনও সংস্থার জড়িত থাকার সম্ভাবনাও উড়িয়ে দিচ্ছেন না তদন্তকারীরা। এক বারে টাকা সরানো হয়েছে না একাধিক বারে সরানো হয়েছে, তা নিয়েও কিছু জানায়নি আইসিসি কিংবা এফবিআই।


আরও খবর



মোরেলগঞ্জে খালে বাঁধ দেওয়ায় ৬শ’ হেক্টর বোরো ফসলের ক্ষতির সম্ভাবনা

প্রকাশিত:Monday ০৬ February ২০২৩ | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ February ২০২৩ |
Image

এম.পলাশ শরীফ, বাগেরহাট প্রতিনিধি :

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে একটি প্রবাহমান খালে বাঁধ দিয়ে পানি চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে একটি প্রভাবশালী মহল। শত শত কৃষকের এখন ৬শ হেক্টর বোরো ধানের ক্ষতির সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। স্থানীয় ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকরা সোমবার সকালে ওই মাঠে বাঁধটি অপসারনের দাবিতে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ করে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের প্রতি জরুরী ভিত্তিতে ব্যবস্থা গ্রহনের দাবি জানিয়েছেন তারা। সরেজমিনে খোঁজ নিয়ে জানাগেছে, রামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের ছোট কুমারখালী গ্রামজুড়ে চিংড়াখালী বলেশ্বর নদীর প্রবাহমান তালতলা খালের প্রশাখা কুমারখালী খাল। এ খালটির একদিকে পলিপড়ে ভরাট হয়ে গেছে। অন্যদিকে গত দুই সপ্তাহের পূর্বে ওই গ্রামের মিন্টু হাওলাদার ব্যক্তিসার্থে খালে বাঁধ দিয়ে পানি চলাচল বন্ধ করে রেখেছেন। যে কারনে কুমারখালী, বৌলপুর, কিছমত বৌলপুর এ ৩টি মৌজায় বোরো ধানের প্রায় ১ হাজার বিঘার বড় ফসলের মাঠে পানি প্রবেশে বাঁধা হওয়ায় পুরো মাঠ ফেটে এখন চৌচির হয়ে পড়েছে। এতে ৩ গ্রামের ৮ শতাধিক কৃষক এখন তাদের জমিতে পানি তুলতে না পারায় হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়েছে। বোরো ধানের বীজতলা মরে যাওয়ার সম্ভাবনায় আতংকে রয়েছে তারা। মাঠের মধ্যে বিভিন্নস্থানে বোরো বীজ হলুদ রং ধারন করে শুকিয়ে যাচ্ছে বীজতলা। হাজার হাজার টাকা ব্যায় করে কৃষক তাদের বোরো ফসল ঘরে তুলতে পারবে কিনা এ নিয়ে শংশয় রয়েছেন তারা। ওই ফসলী মাঠের জমির মালিক আব্দুর রহিম ফকির, নোমান খন্দকার, শহিদ ফকির, বাবু হাওলাদার, মারুফ শিকদার, ছালাম ফকির, সাইদ ফকির, শহিদুল ইসলাম, মোস্তাফিজুর রহমান সহ একাধিক কৃষকরা বলেন, বছরে শুধুমাত্র বোরো ধানের ফসল ফলায় তারা। যা থেকে চাহিদা মিটিয়ে ৫০ থেকে ৫৫ মন ধান বাজারে ধান বিক্রি করে পুরো বছর পরিবারের সংসার চলে তাদের। কৃষকের বিঘাপ্রতি জমিতে খরচ হয়েছে ২০/২৫ হাজার টাকা। এখন বাঁধের কারনে প্রথম গোনে মাঠে পানি তুলতে পারেনি। এ গোনেও যদি পানি তুলতে না পারে তাহলে আর ফসল হবে না। রেকর্ডীয় খাল কিভাবে বাঁধ দিয়ে এ ভোগান্তি করেছে আমাদের। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় চেয়ারম্যানকে অবহিত করেও কোন সমাধান হয়নি। এ বিষয়ে মিন্টু হাওলাদার বলেন, ৪ বছর ধরে আমার জমি থেকে পানি তুলেছে। রেকর্ডীয় খালটি উত্তর পাসে। এ বছর আর পানি তুলতে দিবো না। এ বিষয়ে উপজেলা কৃষি অফিসার আকাশ বৈরাগী জানান, বোরো মৌসুমে কৃষক মাঠে পানি দিতে না পারলে বীজতলা সম্পূন্ন ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে ফসল হবে না। ওই গ্রামের বিষয়টি তিনি অবহিত নন। তবে, উপসহকারি কৃষি কর্মকর্তাকে সরেজমিনে পাঠানো হবে। বৃদ্ধমান সমস্যার বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সাথে কথা বলে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


আরও খবর



রাজবাড়ীতে ট্রাকের সাথে সংঘর্ষে মোটর সাইকেল আরোহীর মৃত্যু

প্রকাশিত:Friday ০৩ February ২০২৩ | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ February ২০২৩ |
Image

নিজস্ব প্রতিনিধি,রাজবাড়ী :

রাজবাড়ীর পাংশায় ড্রামট্রাক ও মোটর সাইকেলের সংঘর্ষে মোটর সাইকেলের আরোহী শাহারুল ইসলাম সাহা ওরফে শহর আলী (৭০) মৃত্যু  হয়েছে। 

তিনি পাংশা উপজেলার শিয়েলডাঙ্গী গ্রামের শীতল মন্ডলের ছেলে। এ সময় কুষ্টিয়া জেলার খোকসা উপজেলার বসুয়া গ্রামের মৃত লতিফ শেখের ছেলে আইউদ্দিন শেখ (৭৫) আহত হয়েছেন। শুক্রবার ( ৩ ফেব্রুয়ারী ) বিকেলে  রাজবাড়ী-কুষ্টিয়া আঞ্চলিক মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে। 

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মোটরসাইকেল আরোহী পাশের সড়ক থেকে মহাসড়কে উঠার সময় কুষ্টিয়া থেকে রাজবাড়ীগামী একটি ড্রাম ট্রাক এসে পিছন থেকে ধাক্কা দিলে ট্রাকের চাকার নিচে পড়ে ঘটনাস্থলে একজনের মৃত্যু হয় ও একজন গুরুতর আহত হয়। আহত ব্যক্তিকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় স্থানীয়রা উদ্ধার করে খোকসা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। এ সময় স্থানীয়রা ঘাতক ড্রাম ট্রাকটি ও চালককে আটক করে। 

পাংশা হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি ) মোঃ লিয়াকত আলী জানান, খবর পেয়ে পুলিশ এসে, ট্রাকটি জব্দ করে ও চালককে পুলিশের হেফাজতে নেয়। এবং মৃত ব্যক্তিকে তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করার প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে 


আরও খবর



কুড়িগ্রামের শীতকাতর অসহায় মানুষের পাশে কেন্দ্রীয় যুবলীগ

প্রকাশিত:Thursday ০২ February 2০২3 | হালনাগাদ:Monday ০৬ February ২০২৩ |
Image

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি :

কুড়িগ্রামের শীতকাতর অসহায়, ছিন্নমূল  মানুষের জন্য গরম কাপড় কম্বল নিয়ে পাশে দাঁড়িয়েছে কেন্দ্রীয় যুবলীগ। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কুড়িগ্রামের ১ হাজার শীত কাতর অসহায় মানুষের মাঝে কম্বল বিতরন করেন।

আজ বিকেলে কুড়িগ্রাম স্টেডিয়ামে কম্বল বিতরন করেন কেন্দ্রীয় যুবলীগের যুগ্ন সম্পাদক বাদসা মতিউর রহমান সাংগঠনিক সম্পাদক সোহেল পারভেজ ত্রান ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক নাসিম পারভেজ পাভেল কুড়িগ্রাম জেলা যুবলীগের আহবায়ক এডভোকেট রুহুল আমিন দুলাল যুগ্ন আহবায়ক রেদওয়ানুল হক দুলাল, খ,ম,আনিছুর রহমান চাঁদ মমিনুর রহমান মমিন ও সদস্য আতাউর রহমান বিপ্লব প্রমুখ। 

গরম কাপড় কম্বল পেয়ে শহরের বস্তি এলাকার জয়নব বেওয়া( ৫৭) বলেন যে ঠান্ডা বাহে,গরম কাপড়ের দরকার ছিলো, কম্বল টা পেয়ে মোর খুব উপকার হলো।যারা কম্বল দিলো তাদের জন্য মুই দোয়া করিম। 

বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ এবারের শীতে উত্তর জনপদ  সহ দেশের বিভিন্ন জেলায় শীতকাতর অসহায় মানুষের জন্য কম্বল সহায়তা প্রদান করছেন।


আরও খবর



দূষণে ধুঁকছে গাজীপুর

প্রকাশিত:Sunday ২৯ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Monday ০৬ February ২০২৩ |
Image

সদরুল আইন, বিশেষ প্রতিবেদক :অনিয়ন্ত্রিত শিল্পকারখানা আর মেগা প্রকল্পের দূষণে ধুঁকছে গাজীপুর নগরী। গবেষণা বলছে, অত্যাধিক ধোঁয়া আর ধুলার কারণে, এখানকার বাতাসে মিলছে স্বাভাবিকের চেয়ে তিনগুণ দূষিত পদার্থ। যা বায়ু দূষণের দিক থেকে গাজীপুরকে রেখেছে ৬৪ জেলার শীর্ষে। ফলে হাসপাতালগুলোতে দিনকে দিন বাড়ছে ফুসফুজনিত রোগীর সংখ্যা

গাজীপুর পরিচয় শিল্প নগরী হলেও, এখন যেনো ধোঁয়া আর ধুলোর জনপদ। কী সকাল, কী রাত...। গোটা শহরের যেখানেই যাওয়া যায়, ধুলোর অত্যাচার থেকে মেলে না রেহাই। বছরের পর বছর ধরে চলা মেগা প্রকল্প আর এলোপাতাড়ি উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে ধুলো ছড়াচ্ছে চারপাশে। শুষ্ক এই মৌসুমে নগরীর কোথাও যেনো এতটুকু প্রাণ নেই। নাকমুখ চেপে মাইলের পর মাইল পাড় হতে হয় এই পথে চলাচলকারী মানুষনজকে। বিশেষ করে ভোগান্তিতে, স্কুল-কলেজগামী শিক্ষার্থীরা।

ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা অসংখ্য শিল্পকারখানার কালো ধোঁয়া বিষিয়ে তুলছে বাতাস। সম্প্রতি গাজীপুরের বায়ুমান পর্যবেক্ষণ করেছে বেসরকারি সংস্থা ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ। যাতে দেখা যায়… টঙ্গীর স্টেশন রোড, কলেজ গেইট, মেইল গেইট, টঙ্গী বাজারসহ বেশ কিছু এলাকার বায়ুতে, প্রতি ঘনমিটারে গড়ে ধূলিকণা ও দূষিত পদার্থের পরিমাণ দুশো থেকে সাড়ে ৫শো মাইক্রোগ্রামে।

গাজীপুর সদরের মির্জাপুরের ব্যবসায়ী আতিক হাসান। শ্বাসকষ্ট ও বুকে ব্যাথা নিয়ে কাতরাচ্ছেন শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। চিকিৎসক জানান, অত্যধিক বায়ু দূষণের ফলে হাসানের মতো রোগির সংখ্যা বেড়েছে দ্বিগুন।

গাজীপুরের পরিবেশ অধিকার কর্মীদের অভিযোগ… শিল্প কলকারখানা ও নির্মাণকাজে পরিবেশ অধিদপ্তরের নিয়ন্ত্রণ নেই বললেই চলে। নগরীর বায়ু দূষণ নিয়ন্ত্রণে একরকম অসহায়ত্ব ফুটে উঠলো জেলা পরিবেশ কর্মকর্তার কথায়। বলছেন, সীমিত জনবলের কারণে সবসময় অভিযান পরিচালনা সম্ভব হচ্ছে না।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বায়ু দূষণ নিয়ন্ত্রণে শিগগিরি শক্ত পদক্ষেপ না নিলে, আরো ভয়াবহ স্বাস্থ্যঝুঁকিতে পড়বে গাজীপুর মহানগরবাসী।


আরও খবর