Logo
শিরোনাম
শবে বরাত পালন মুসলিম জাতিকে একতার চেতনায় উদ্বুদ্ধ করে। ৫৭ তম খোশরোজ শরীফ ও মইনীয়া যুব ফোরামের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন বাঙালি সাংস্কৃতিতে মাইজভাণ্ডারী ত্বরীকার সাথে সম্পর্ক রয়েছে সীমান্তে হত্যা বন্ধের দাবীতে প্রতীকী লাশ নিয়ে হানিফ বাংলাদেশীর মিছিল লক্ষ্মীপুরে কৃষক কাশেম হত্যা: স্ত্রী, শ্বশুরসহ গ্রেপ্তার ৫ কুমিল্লা সিটি’র উপনির্বাচন: মেয়র পদে প্রতীক বরাদ্দ অবৈধ মজুদকারীরা দেশের শত্রু : খাদ্যমন্ত্রী ফতুল্লায় সিগারেট খাওয়ার প্রতিবাদ করায় কিশোরকে পিটিয়ে হত্যা বকশীগঞ্জে মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা নোবিপ্রবিতে সিএসটিই এলামনাই এসোসিয়েশনের নতুন কমিটি গঠন

প্রতিপক্ষকে মূল্যায়ন করতে হবে.. স্কালোনি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০১ ডিসেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ |

Image

শঙ্কা ছিল দ্বিতীয় রাউন্ডে খেলার, তবে পোল্যান্ডকে গতকাল বুধবার ২-০ গোলে হারিয়ে শেষ ষোলো নিশ্চিত করেছে আর্জেন্টিনা। নকআউট পর্বে আলবিসেলেস্তাদের প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া। তবে শেষ ষোলোর এই ম্যাচে দারুণ লড়াই হতে যাচ্ছে বলে মনে করেন আর্জেন্টাইন কোচ লিওনেল স্কালোনি। অবশ্য পোল্যান্ডের বিপক্ষে দারুণ এ জয়ের পর যারা বলছেন চ্যাম্পিয়ন হতে যাচ্ছে আর্জেন্টিনা, তাদেরকেও শান্ত থাকতে বললেন এই কোচ।

বুধবার রাতে দোহার ৯৭৪ স্টেডিয়ামে ফিফা বিশ্বকাপের ‘সি’ গ্রুপে নিজেদের শেষ ম্যাচে দ্বিতীয়ার্ধে এসে গোলের দেখা পায় আর্জেন্টিনা। 

ম্যাচ শেষে দলটির কোচ স্কালোনি বলছেন, ‘আমরা ভালো একটি ম্যাচ খেলেছি এবং এখন আমাদের এভাবেই খেলে যেতে হবে। তবে আমরা ফেভারিট নই, এখনও একই রকমই রয়েছি। তারা সবাই কঠিন, আমরা সৌদি আরবের বিপক্ষেই এটি দেখেছি। এটা (নিজেরা ফেভারিট) সম্পূর্ণ ভুল। এমন না যে এই জয়ে আমরা চ্যাম্পিয়ন হতে চলেছি, এটা ঠিক না।’

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচ নিয়েও শিষ্যদের সাবধান থাকার আহ্বান জানিয়ে তিনি বললেন, ‘আমরা সন্তুষ্ট, তবে কাজগুলো সহজ নয়। এই বিশ্বকাপে সব দলই কঠিন। সৌদি আরব আমাদের হারিয়ে দিয়েছে, কেউ কি এমনটা প্রত্যাশা করেছিল? আপনি যদি মনে করেন অস্ট্রেলিয়া সহজ হবে তাহলে আপনি ভুল ভাবছেন। কারণ এই বিশ্বকাপে কঠিন দলের বিপক্ষে জয় তুলে তারা দেখিয়ে দিয়েছে। তাই প্রতিপক্ষকে মূল্যায়ন করতে হবে ।


আরও খবর

মাথায় আঘাত পেয়ে হাসপাতালে মোস্তাফিজ

রবিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ট্রেনের টিকিট কালোবাজিদের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানে যাবে রেলপথ মন্ত্রণালয়

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ |

Image

রাজবাড়ী প্রতিনিধি :  ট্রেনের টিকিট কালোবাজারিদের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানে যাবে রেলপথ

মন্ত্রণালয়। ইতমধ্যে এই চক্রের বেশ কয়েকজনকে গ্রেফতার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনার সদস্যরা। এই

অভিযান অব্যাহত থাকবে। আসন্ন ঈদযাত্রায় ট্রেনের টিকিট প্রাপ্তিকে স্বস্তি থাকবে বলে জানান রেলপথ

মন্ত্রণালয়ে মন্ত্রী মো. জিল্লুল হাকিম। ট্রেনের টিকিট কালোবাজির চক্রের সাথে ‘সহজ’ ডটকম,

রেলের কর্মচারীসহ অসাধু কিছু কর্মকর্তারা জড়িত।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাজবাড়ীর মাদ্রাসা পাংশা- বালিয়াকান্দি ও কালুখালী শিক্ষক-কর্মচারীবৃন্দের

আয়োজনে পাংশা জর্জ সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন রেলমন্ত্রী।

সংগঠটির সমিতির সভাপতি মীর আব্দুল বাতেনের সভাপতিত্বে মন্ত্রী বলেন, বিএনপির সময় রেলপথ ধ্বংস

করা হয়েছিল। রেলে আগুন দিয়ে রেলপথকে ধ্বংস করতে চায় বিএনপি। বিভিন্ন জেলায় নতুন নতুন রেলপথ

নির্মাণ করে বাংলাদেশকে রেল নেটওয়ার্কের আওতায় আনতে হবে।

ট্রেনে যাত্রীদের জন্য যে খাবার সরবরাহ করা হয় সেগুলো অত্যন্ত নি¤œমানের। মানুষ টাকা দিয়ে খাবার ক্রয়

করে খায়। কিন্তু খাবারের মান ভালো করার জন্য নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে। আগামী ১৩ ফেব্রæয়ারী

্ধসঢ়;এসব বিষয় নিয়ে মন্ত্রণালয়ে সভা আহŸান করা হয়েছে।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শফিকুল মোরশেদ আরুজ, পাংশা উপজেলা পরিষদের

চেয়ারম্যান ফরিদ হাসান ওদুদ, বালিয়াকান্দি উপজেলা পরিষদের আবুল কালাম আজাদ, পাংশা উপজেলা

আওয়ামী লীগের সভাপতি খোন্দকার সাইফুল ইসলাম বুড়ো প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।


আরও খবর



ব্যবসা শুরু করতে যাচ্ছেন পরীমণি

প্রকাশিত:শনিবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ |

Image

গত বছরের শেষের দিকে ব্যবসায়ীর হিসেবে নাম লেখালেন ঢাকাই সিনেমার অভিনেত্রী অপু বিশ্বাস। নিজের পরিকল্পনায় তিনি শুরু করেছেন বুটিক ও বিউটি পারলার এবং রেস্টুরেন্টের ব্যবসা। এবার সেই পথে হাটতে যাচ্ছেন ঢাকাই চলচ্চিত্রের বর্তমান প্রজন্মের জনপ্রিয় নায়িকা পরীমণি।

অভিনেত্রীর পাশাপাশি এবার নতুন পরিচয়ে আসছেন তিনি। আসছে ঈদে একটি প্রসাধনীর পণ্যের ব্যবসা শুরু করতে যাচ্ছেন।

এ নিয়ে এক গণমাধ্যমকে পরীমণি বলেন, আসলে অনেক আগে থেকেই আমার ব্যবসা করার ইচ্ছে ছিল কিন্তু কি কিসের বিজনেস শুরু করবো তাই ভাবছিলাম। অবশেষে অনেক ভেবে আর সবদিক বিবেচনা করে প্রসাধনীর পণ্যের ব্যবসা শুরু করতে যাচ্ছি।

হালের এই জনপ্রিয় নায়িকা আরও বলেন, এখন সোশ্যাল মিডিয়াতে ঢুকলেই অনেকেই দেখি অনেক ব্যবসা করছে। সেগুলোর মাঝে মেয়েদের প্রসাধনীর পণ্যের ব্যবসা বেশ তুঙ্গে। অনেকেই বেশ ভালো পণ্য বিক্রি করছে। তবে অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যায় একটু কম দামে অনেকেই ব্যান্ডের পণ্য অনলাইন থেকে ক্রয় করছে। সেক্ষেত্রে দেখা যায় তারা আসলে প্রতারিত হচ্ছে। কেননা ব্যান্ডের পণ্য বলে বিক্রি হচ্ছে ক্লোন পণ্য। যা আসলে আমাদের স্কিনের জন্য বেশ ক্ষতিকর। আর তাই স্কিন ভালো রাখতে অরজিনাল ব্যান্ডের পণ্য নিয়ে বাজারে আসছি।


আরও খবর

বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত মাহিয়া মাহির

শনিবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




গজারিয়ায় পুরস্কার বিহীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতা, অভিভাবক মহলে মিশ্র প্রতিক্রিয়া

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ |

Image

মুন্সিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি : গজারিয়ায় উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের তত্ত্বাবধানে অনুষ্ঠিত বাৎসরিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার না দিয়ে সার্টিফিকেট স্কুলে পৌঁছে দিবে বলে মাইকে ঘোষণা দেওয়া হয়।

গত (১৫ ফেব্রুয়ারী) বৃহস্পতিবার সকাল থেকে মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলার টেংগারচর ইউনিয়নের হাজী কেরামত আলী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ প্রাঙ্গনে এ ক্রীড়া অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

ক্রিয়া প্রতিযোগিতায় সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন উপজেলা শিক্ষা অফিসার আব্দুল কাদির মিয়া, সহযোগী হিসেবে সহকারী শিক্ষা অফিসারগণ উপস্থিত ছিলেন।

স্থানীয় সুত্রে জানাযায়, বিভিন্ন ইউনিয়ন থেকে কয়েকশত ক্রীড়াপ্রেমী ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের অভিভাবক ও শিক্ষকদের উপস্থিতিতে ক্রিয়া অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেন। ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে কোন প্রকার পুরস্কার না দিয়ে শুধুমাত্র ছাপানো সার্টিফিকেট স্কুলে পৌঁছে দিবে বলে মাইকে ঘোষণা দেওয়া হয়।

এতে কোমলমতি ক্রীড়া শিক্ষার্থীদের প্রতিভা বিকাশে অনাগ্রহ সৃষ্টি হয়েছে বলে অভিভাবক মহলে প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়।

আগত শিক্ষার্থীদের কোন প্রকার পানীয় খাদ্যদ্রব্য সরবরাহ করা হয়নি বলে ছাত্র ছাত্রী ও অভিভাবকরা জানান।

বিশেষ সূত্রে জানা যায় ক্রীড়া প্রতিযোগিতা উপলক্ষে উপজেলা শিক্ষা অফিসের ৭ হাজার টাকা বরাদ্দ থাকলেও শিক্ষা অফিসার আব্দুল কাদির প্যান্ডেল, সাউন্ড সিস্টেম মাইক দুইজন সহকারি শিক্ষক হতে আদায় করে নেন। এমনকি বাৎসরিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার ব্যানার পর্যন্ত তৈরি করা হয়নি।

কয়েকজন ক্রীড়াপ্রেমী কোমলমতি শিক্ষার্থী জানান ব্যানার ও পুরস্কার না থাকায় আমরা আগামী ক্রিয়া অনুষ্ঠানে যোগদান করা থেকে বিরত থাকবো।

অভিভাবক ও শিক্ষকরা জানান বাৎসরিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় বিদ্যালয় ও উপজেলা শিক্ষা অফিস হতে বরাদ্দের অর্থ কোথায় ব্যবহার হলো তা ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ তদন্ত করে যথাযথ ব্যবস্থা নিয়ে কোমলমতি ক্রীড়া-প্রেমী শিক্ষার্থীদের প্রতিভা বিকাশে অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করবেন।

উক্ত ক্রীড়াপ্রতিযোগিতা অনুষ্ঠান বিষয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসার আব্দুল কাদির মিয়াকে ফোন দিলেও তাকে পাওয়া যায়নি। এ বিষয়ে গজারিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কোহিনুর আক্তার জানান বিষয়টি আমি অবগত নয়, তবে প্রতিভা বিকাশে ক্রীড়া-প্রেমী ছাত্র-ছাত্রীদের উৎসাহে পুরস্কার বিতরণে উপজেলা শিক্ষা অফিসার এই ভূমিকা কেন নিবে, তা তদন্ত করে দেখব।


আরও খবর

মাথায় আঘাত পেয়ে হাসপাতালে মোস্তাফিজ

রবিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




নওগাঁয় লিগ্যাল এইডের গণ-শুনানী অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ |

Image

শহিদুল ইসলাম জি এম মিঠন, সিনিয়র রিপোর্টার :

''বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন পূরণ, বিনামূল্যে আইনি সেবার দ্বার উন্মোচন'' এই প্রতিপাদ্য বিষয়কে সামনে রেখে নওগাঁয় আইনগত সহায়তা বিষয়ক প্রাতিষ্ঠানিক গণশুনানী এবং কুইজ প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে নওগাঁ সরকারি কলেজ অডিটোরিয়ামে কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর নাজমুল হাসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নওগাঁ জজ কোটের বিজ্ঞ সহকারী জজ ও জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার আইভীন আক্তার। জেলা লিগ্যাল এইড অফিস নওগাঁর আয়োজনে ও খান ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় অনুষ্ঠানে কলেজের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক ও তিন শতাধিক শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন সহকারী জজ মামুনুর রশিদ ফয়সাল, নাজমুল হাসান, খান ফাউন্ডেশনের জেলা প্রোগ্রাম কোঅডিনেটর মাসুদুর রহমান, মাঠ সমন্বয়কারী নূরুজ্জামান বুলবুল প্রমুখ। এসময় প্রধান অতিথি লিগ্যাল এইড প্রতিষ্ঠিত করার কারণ, লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য এবং লিগ্যাল এইড অফিস থেকে কোন কোন মানুষ কোন ধরণের আইনি সহায়তা বিনামূল্যে পেতে পারেন সেই বিষয়সহ বিভিন্ন জনগুরুত্বপূর্ণ  বিষয় তুলে ধরেন। বিশেষ করে শিক্ষার্থীদের জানা অত্যন্ত জরুরী এমন নানা গুরুত্বপূর্ণ বিষয়েও আলোচনা করেন প্রধান অতিথি। এছাড়া অনুষ্ঠান থেকে লিগ্যাল এইডের বিভিন্ন কার্যক্রম সম্পর্কে জানার বিষয়গুলো নিজেদের আশেপাশের আইনি সহায়তা পাওয়ার মতো যোগ্য মানুষদের মাঝে পৌছে দিতে শিক্ষার্থীদের প্রতি প্রধান অতিথি আহবান জানান। পরে প্রধান অতিথি অনুষ্ঠানে আগত বিভিন্ন শিক্ষার্থীদের প্রশ্নের উত্তর প্রদান শেষে কুইজ প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে থেকে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকারী শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার তুলে দেন।


আরও খবর



প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন- ১৬ জনের জেল,জরিমানা

প্রকাশিত:শনিবার ০৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ |

Image

শহিদুল ইসলাম জি এম মিঠন, সিনিয়র রিপোর্টার :

নওগাঁর বিভিন্ন কেন্দ্রে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন করে জালিয়াতি করায় ১৬ জন চাকরি প্রার্থীকে বিভিন্ন মেয়াদে জেল ও জরিমানা করা হয়েছে। তাদের মধ্যে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস ব্যবহার করা সহ অন্যান্য অপরাধ করায় ১৪ জন প্রার্থীকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ১০ থেকে ১ মাস পর্যন্ত কারাদন্ড প্রদান করেন এবং দু' জনকে ৫শ' টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। কারাদন্ড প্রাপ্তদের আদালতের মাধ্যমে নওগাঁ জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে তাদের এ সাজা দেওয়া হয়।

সাজা প্রাপ্তরা হলেন, মান্দা মমিন শাহানা সরকারি ডিগ্রি কলেজ কেন্দ্র থেকে ইলেকট্রনিক ডিভাইস ব্যবহার করায় রবিউল ইসলাম কে ১০ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে এবং মিঠুন ও সুলতানকে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেওয়া হয়েছে। শহীদ কামারুজ্জামান কেন্দ্র থেকে নাইমুর রহমান কে ও টেক্সটাইল কেন্দ্র থেকে  মোস্তাফিজুর বিন আমিন কে ১৫ দিন করে বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে। মান্দা থানা আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে জারজিস আলমকে ১০দিন, ফজলে রাব্বি মন্ডলকে ১ মাস, নুর আলম কে ৭ দিন, জামাল উদ্দিন কে ১০ দিন, আব্দুল্লাহ সাইরাফি কে ১০ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। মহাদেবপুর সর্বমঙ্গলা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে আনসার আলী নামের একজন কে ১৫ দিনের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। বদলগাছি উপজেলার পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে একজনকে পুলিশে সোপর্দ করে তার বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে। নওগাঁ সদর থানার চক এনায়েত উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে ১ জনকে ১০ দিনের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে, পাহাড়পুর জিএম হাই স্কুল কেন্দ্র থেকে ১ জনকে ১০ দিনের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। এছাড়াও সরকারি বিএমসি মহিলা কলেজ কেন্দ্র থেকে ২ জনকে ৫শ' টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে।

জানা যায়, শুক্রবার জেলার বিভিন্ন কেন্দ্রে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে কানে ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস ব্যবহার করার অপরাধে পাবলিক পরীক্ষা আইন ১৯৮০ এর ১১ ধারায় তাদের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড প্রদান করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।


আরও খবর

আজ থেকে এক মাস বন্ধ সব কোচিং সেন্টার

মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪