Logo
শিরোনাম
খন্দকার রুহুল আমিন এনআরবি ব্যাংকের

রিস্ক ম্যানেজমেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান পুনর্নির্বাচিত

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ অনুপ সিংহ,

এনআরবি ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের ০৭ আগস্ট অনুষ্ঠিত সভায় খন্দকার রুহুল আমিন সর্বসম্মতিক্রমে বোর্ড রিস্ক ম্যানেজমেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান পুনর্নির্বাচিত হন।

তিনি নোয়াখালী জেলার সোনাইমুড়ী উপজেলার চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্বে চলমান রয়েছেন। তিনি দেশে ও বিদেশে একজন দক্ষ ও সফল ব্যবসায়ী। বর্তমানে তিনি আমেরিকায় অবস্থিত ফাদার রিয়ালিটি কর্পোরেশন, সুরমা রিয়ালিটি কর্পোরেশন, আমিন রিয়ালিটি কর্পোরেশন, হরিপুর রিয়ালিটি করর্পোরেশন, বোম্বে গ্রীল, গান্ধী প্যালেস, আমিন ইন্ডিয়ান রেস্টুরেন্ট, রোশাই ইন্ডিয়ান রেস্টুরেন্ট এবং ইন্ডিয়ান প্যালেস-এর স্বত্ত্বাধিকারী।

আরো রয়েছেন আমিন বাংলাদেশে হোটেল নিউ ইয়র্ক, ক্যাফে নিউ ইয়র্ক, আমিন সিএনজি ফিলিং স্টেশন, ঢাকা নিউ ইয়র্ক এ্যাগ্রো ফিসারিজ এবং খন্দকার টাওয়ার-এর স্বত্ত্বাধিকারী। সামাজিক উন্নয়নে জনহিতকর কর্মকান্ডে তিনি সক্রিয়ভাবে জড়িত।


আরও খবর

মূল্যস্ফীতি কমে এসেছে’

শুক্রবার ০২ ডিসেম্বর 2০২2




ভার্জিন পাল্প আমদানি বন্ধ

কাগজ সংকটে বই প্রকাশ অনিশ্চিত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০১ ডিসেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

কাগজ সংকট থেকে উদ্ভূত পরিস্থিতি ক্রমেই আরো জটিল হচ্ছে। ডলার সংকটে বিদেশ থেকে ভার্জিন পাল্প আমদানি বন্ধ। রিসাইকেল পাল্পে তৈরি কাগজের মাধ্যমে বই মুদ্রণ ও স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের লেখার খাতার প্রয়োজন মেটানোর কথা। কিন্তু পুরোনো কাগজের দামও বাড়িয়ে দিয়েছে একটি চক্র। এতে থমকে যাওয়ার উপক্রম হয়েছে শিক্ষাকার্যক্রম। ঘোর অনিশ্চয়তায় পড়েছে প্রকাশনাশিল্প। সৃজনশীল বই প্রকাশের অন্যতম উপলক্ষ একুশে বইমেলাও জৌলুশ হারানোর আশঙ্কায়।

কয়েকটি মিল, পাইকারি কাগজ ব্যবসায়ী এবং নোট-গাইড প্রকাশকরা হাজার হাজার টন কাগজ কিনে মজুদ করে ফেলেছেন বলে অভিযোগ। ফলে বাজারে দেখা দিয়েছে কাগজ সংকট। এ অবস্থায় শুধু পাঠ্যবই নয়, ফেব্রুয়ারিতে একুশে বইমেলায় সৃজনশীল বই, ছোট ছোট প্রকাশনীর গাইড, বই ও লেখার খাতা তৈরি পড়েছে অনিশ্চয়তার মধ্যে। এ অবস্থায় সরকারি হস্তক্ষেপ ছাড়া কাউকে সংকট থেকে উত্তরণের উপায় নেই বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

একুশে বইমেলায় প্রতিটি প্রকাশনী থেকে ২০ থেকে ১৫০টি পর্যন্ত বই প্রকাশ করা হয়। এ ক্ষেত্রে নামি-দামি লেখকের চেয়ে নতুন লেখকদের বই প্রকাশ হয় সংখ্যায় বেশি। নতুন লেখকরা বইমেলার মাধ্যমেই বই প্রকাশের সুযোগ পান।

গত বছর জানুয়ারিতে ৮০-১০০ গ্রাম অপসেট কাজ ১৪৫০-১৫০০ টাকায় বিক্রি হলেও বর্তমানে তা ৩৩০০ থেকে ৩৫০০ টাকা। ১০০ গ্রাম অপসেট কাগজ ১৭০০-১৭৫০ টাকার জায়গায় এবার ৪২০০-৪৩০০ টাকা নেওয়া হচ্ছে। প্রকাশকদের এমনিতে পুঁজির স্বল্পতা, তার ওপর কাগজের দাম বেড়ে যাওয়ায় মেলায় বইয়ের দাম দেড় গুণ হয়ে যাবে। বইয়ের দাম বাড়লে পাঠকের ক্রয়ক্ষমতা কমবে। পরিচিত লেখক ছাড়া নতুন লেখকদের বই প্রকাশনা পড়বে ঝুঁকিতে।

জানা যায়, নিউজপ্রিন্ট কাগজের দাম ৪৫-৫০ থেকে বেড়ে ১০৮ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে। এ কারণে বছরের শুরুতে সহায়ক বই ছাপানো থেকেও পিছিয়ে যাচ্ছেন অনেক প্রকাশক। বড় প্রকাশনীগুলো কিছু সহায়ক ছাপালেও তা দ্বিগুণ মূল্যে শিক্ষার্থীদের কিনতে হবে। বাড়তি দামে প্রকাশকরা বই ছাপবেন। মূল্য কতটা বাড়ানো হবে সেটি নিয়ে পুস্তক প্রকাশনা ও বিক্রেতা সমিতির বৈঠক হয়েছে। সেখানে ফর্মাপ্রতি ২৫ শতাংশ মূল্য বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। যে বইয়ের দাম ৬৫০ টাকা ছিল তা এখন ৮০০-৮৫০ টাকায় বিক্রি হবে।

এখন টাকা থাকলেও প্রয়োজনীয় কাগজ পাওয়া যাচ্ছে না অ্যাকাডেমিক ও সৃজনশীল বই ছাপানোয় প্রকাশকদের ওপর বড় ধরনের ধাক্কা এসেছে। অনেক প্রকাশক নিঃস্ব হয়ে পড়েছেন। কিছু কাগজ ব্যবসায়ী কারসাজি করে মজুদ করে রেখেছেন। তারা ইচ্ছামতো দাম হাঁকছেন। বিশ্ববাজারে যে পরিমাণে পাল্পের দাম তার দ্বিগুণ দামে কাগজ বিক্রি করছে মিলগুলো। সিন্ডিকেট করে সবাই সুযোগ নিচ্ছে। প্রকাশকদের পক্ষে বলার কেউ নেই।

সংকট মোকাবিলায় এ মুহূর্তে শুল্কমুক্ত কাগজ আমদানির অনুমোদন প্রয়োজন। একই সঙ্গে এই খাতকে নিত্যপ্রয়োজনীয় ঘোষণা করে বাংলাদেশ ব্যাংককে পদক্ষেপ নিতে সরকারের পক্ষ থেকে সহযোগিতা করার আহ্বান জানাতে হবে ।


আরও খবর



মহাদেবপুরে আওয়ামী লীগের বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৪ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

শহিদুল ইসলাম জি এম মিঠন, স্টাফ রিপোর্টারঃ


নওগাঁ, মহাদেবপুর ও বদলগাছী আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীদের উপর ককটেল নিক্ষেপের প্রতিবাদে নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার ২৪ নভেম্বর বিকালে মহাদেবপুর উপজেলা সদর বাসস্ট্যান্ড মাছের মোড় বটতলায় আয়োজিত সমাবেশে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদ এর চেয়ারম্যান আহসান হাবীব ভোদন প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন।

সহ-সভাপতি ও জেলা পরিষদ সদস্য গোলাম নুরানী আলাল এতে সভাপতিত্ব করেন। উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি রাজু আহমেদের সঞ্চালনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ মজিবর রহমান ও আলফা আনোয়ার হোসেন, উপ-দপ্তর সম্পাদক কুদরত ই খুদা সোহাগ, উপ-প্রচার সম্পাদক মাস্টার ফণি ভূষণ মহন্ত, সদর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও মহাদেবপুর সদর ইউপি চেয়ারম্যান সাঈদ হাসান তরফদার শাকিল, উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক গোলাম রেজাউন্নবী আনসারী বাবু, যুগ্ম আহ্বায়ক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শ্রী অনুকূল চন্দ্র সাহা বুদু, উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি শ্রী অমিৎ কুমার ব্যানার্জী বাপ্পী, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি কাওসার আলী, সহ-সভাপতি তাপস সরদার, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক তনু কুমার দেব প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, বিএনপি জামাত দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরী করার জন্য এবং মহাদেবপুরে এমপির ছেলে সাকলাইন মাহমুদ রকি ও ভাগ্নে সাঈদ হাসান তরফদার শাকিলকে হত্যার উদ্দেশ্যে ককটেল হামলা চালায়। তারা এর তীব্র নিন্দা জানান ও জড়িতদের গ্রেপ্তারের দাবী জানান।

সন্ধ্যায় একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে উপজেলা সদরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। উপজেলা আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা এতে অংশ নেন।


আরও খবর



নওগাঁয় সংবাদ সম্মেলন

রাজনৈতিক দলে ৩৩ শতাংশ নারীনেতৃত্ব নিশ্চিতের দাবি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৫ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

শহিদুল ইসলাম জি এম মিঠন, স্টাফ রিপোর্টারঃ


রাজনৈতিক দলের সব পর্যায়ে ৩৩ শতাংশ নারী নেতৃত্ব নিশ্চিত করাসহ ৭ দফা দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন নওগাঁ নারী উন্নয়ন ফোরাম ও অপরাজিতা নেটওয়ার্ক। মঙ্গলবার ১৫ নভেম্বর দুপুরে নওগাঁ জেলা প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এসব দাবি উপস্থাপন করেন নারী সংগঠনের নেত্রীবৃন্দরা।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, অপরাজিতা নেটওয়ার্ক এর সদস্য মরিয়ম বেগম। 

তিনি বলেন, গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ (আরপিও) অনুযায়ী রাজনৈতিক দলগুলোতে ৩৩ শতাংশ নারী প্রতিনিধিত্ব রাখার বিধান কার্যকর করার বিষয়টি দিন দিন অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ-১৯৭২ অনুচ্ছেদে রাজনৈতিক দলগুলির কেন্দ্রীয় কমিটিসহ সকল কমিটিতে ৩৩ শতাংশ নারী প্রতিনিধিত্ব ২০২০ সালের মধ্যে নিশ্চিত করতে নির্বাচন কমিশন (ইসি) থেকে নিবন্ধন নিয়েছিল দলগুলো। কিন্তু ২০২২ সাল অতিক্রম করলেও এখনও প্রধান রাজনৈতিক দলগুলোসহ অন্য কোনো রাজনৈতিক দলই এই শর্ত পূরন করেনি। 

লিখিত বক্তব্য তিনি আরও বলেন, তাই নতুন একটি সময়সীমা বেঁধে দিয়ে আগামী ২০২৫ সালের মধ্যে রাজনৈতিক দলসমূহের সকল কমিটিতে এক-তৃতীয়াংশ (৩৩ শতাংশ) নারী প্রতিনিধিত্ব নিশ্চিত করার শর্ত যুক্ত করে রাজনৈতিক দল নিবন্ধন আইন-২০২০ বাস্তবায়ন করতে হবে। গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশে (আরপিওতে) রাজনৈতিক দলের সম্পাদকমন্ডলী বিশেষ করে সভাপতি/সাধারণ সম্পাদক, যুগ্ন সম্পাদক, সাংগঠনিক সম্পাদক পদগুলোর মধ্যে যেকোনো একটি গুরুত্বপূর্ণ পদে নারী অন্তভুক্তিকরণের বিষয়টি আবশ্যক করতে হবে। 

এছাড়া জেলা-উপজেলা এবং ইউনিয়নে রাজনৈতিক দলের মূল কমিটিতে নারীর অংশগ্রহণ ও অগ্রগতি কতটুকু হলো তা নির্বাচন কর্মকর্তাদের নিয়মিতভাবে পর্যবেক্ষণ করা, জাতীয় ও স্থানীয় সরকারের নির্বাচনে ৩৩ শতাংশ মনোনয়ন দেওয়ার শর্ত যুক্ত করা, রাজনৈতিক দলের কমিটিগুলোর মেয়াদ শেষ হওয়ার সাথে সাথে সম্মেলনের করা এবং যে কোনো নির্বাচনে দলীয় মনোনয়নের ক্ষেত্রে নারীর প্রত্যক্ষ অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে হবে এবং মনোনয়ন বৃদ্ধি করার দাবি জানানো হয়। 

সংবাদ সম্মেলনে নওগাঁ সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও অপরাজিতা নেটওয়ার্ক সদস্য শাহনাজ আক্তার, মরিয়ম বেগম, মর্জিনা বেগম সহ অপরাজিতা নেত্রীবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



রূপগঞ্জের চনপাড়া বস্তিতে হাত বাড়ালেই মাদক

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৮ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

 নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে চনপাড়া বস্তিতে ২০০ মাদকের ডিলার রয়েছে। প্রতি সন্ধ্যায় এই বস্তিতে বসে মাদকের হাট। পুলিশ ও প্রশাসন সূত্রে এ তথ্য পাওয়া গেছে। বস্তিতে প্রতি মাসে প্রায় আড়াই থেকে তিন কোটি টাকার মাদক বিক্রি হয়। আর মাসে ১০ লাখ টাকা বখরা হিসেবে পায় পুলিশ। উপজেলার কায়েতপাড়া ইউনিয়ন এলাকায় এই চনপাড়া বস্তি। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রাজধানী ঢাকার সীমানায় এই বস্তির অবস্থান। বস্তিতে প্রায় ৮০ হাজার মানুষের বাস। এখানে মাদক বেচাকেনা চলে প্রকাশ্যে। রূপগঞ্জ, সিদ্ধিরগঞ্জ ও রাজধানীর ডেমরা, সারুলিয়া, যাত্রাবাড়ীসহ বিভিন্ন এলাকার মানুষ বস্তিতে আসে মাদক সেবন করতে। মাদক ব্যবসা নিয়ন্ত্রণ নিয়ে প্রায়ই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। স্থানীয় প্রশাসন এখানকার মাদক ব্যবসা নিয়ন্ত্রণে নিতে বরাবরই ব্যর্থ হয়েছে। মাদকের হাটখ্যাত চনপাড়া বস্তি থেকে থানা পুলিশ, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের কর্মকর্তা, রাজনৈতিক নেতা, প্রভাবশালীরা নিয়মিত বখরা পায়। মাদক কারবারকে কেন্দ্র করে গত তিন মাসে কমপক্ষে শতাধিক বাড়িতে লুটপাট হয়েছে হত্যা ধর্ষণ আর লুট-- চনপাড়া বস্তির নিয়মিত ঘটনা চনপাড়ার বেশিরভাগ মানুষের অভিযোগ ইউপি সদস্য প্যানেল মেয়র বজলুর রহমানের দিকে রাজনৈতিক প্রভাব খাটিয়ে মাদক ব্যবসা করে শত কোটি টাকার মালিক বনে গেছেন বজলুর রহমান

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সন্ধ্যা ঘনিয়ে এলে চনপাড়ায় কোলাহল শুরু হয়। এ রমরমা আসর চলে গভীর রাত পর্যন্ত। এখানে ফেরি করে বিভিন্ন ধরনের মাদক বিক্রি করা হয়।

এলাকাবাসী জানায়, ঢাকা ও নারায়ণগঞ্জ জেলার সীমান্তবর্তী শীতলক্ষ্যা ও বালু নদীর মোহনায় চনপাড়া পুনর্বাসন কেন্দ্র। বায়ান্ন বাজার তেপ্পান্ন গলিখ্যাত চনপাড়ায় প্রবেশ ও বের হওয়ার পথ রয়েছে অনেক। একদিকে পুলিশ প্রবেশ করলে মাদকসেবীরা অন্য পথ দিয়ে বের হয়ে যায়। এখানে দিনমজুর, ঠেলাগাড়িচালক, রিকশাচালক, ফেরিওয়ালা, গার্মেন্ট শ্রমিকের পাশাপাশি পেশাদার খুনি, ছিনতাইকারী, অজ্ঞান পার্টির সদস্যরা বাস করে।

পুলিশ, এলাকাবাসী, মাদকসেবী ও কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ীর তথ্যমতে ২০০ ব্যক্তি মাদক ব্যবসা করে।

ভুক্তভোগীরা বলছেন, থানায় অভিযোগ দিলে তাদের উপর অত্যাচারের মাত্রা আরও বাড়ে তাই তারা থানায় কোন অভিযোগ দেন না


আরও খবর



মেসির ফুটবল যাদু আমাকে মুগ্ধ করে: লেভানডভস্কি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৫ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ |
Image

ইয়াশফি রহমান : বায়ার্ন মিউনিখ ছেড়ে বার্সেলোনায় যোগ দিয়ে দারুণ সময় কাটাচ্ছেন পোলিশ তারকা স্ট্রাইকার রবার্ট লেভানডভস্কি। নিজে গোল করার সাথে সতীর্থদের দিয়েও করাচ্ছেন গোল। বার্সায় দুর্দান্ত ফর্মে থাকা লেভান এবার জানালেন নিজের স্বপ্নের কথা। লিওনেল মেসির মতো মহাতারকার সঙ্গে খেলতে পারাটা তার জন্য স্বপ্নের মতো বলে জানান এই ফুটবলার।

সম্প্রতি স্প্যানিশ গণমাধ্যম মার্কাকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে লেভানডভস্কি বলেন, মেসির মতো মহাতারকার সঙ্গে খেলতে পারা আমার জন্য স্বপ্নের মতো। তার সাথে খেলার জন্য মুখিয়ে আছি। আশা করি আগামী মৌসুমে সে তার প্রিয় ক্লাব বার্সেলোনায় যোগ দেবেন এবং আমার স্বপ্ন পূরণ হবে। তার ফুটবল যাদু আমাকে সবসময়ই মুগ্ধ করে।

২১ বছর কাতালান ক্লাব বার্সেলোনার হয়ে খেলা ক্ষুদে যাদুকর ‘লিওনেল মেসি’ দুই বছর আগে পাড়ি জমান ফ্রেঞ্চ ক্লাব প্যারিস সেন্ট জার্মেইতে। তবে সম্প্রতি তার বার্সায় ফেরা নিয়ে গুঞ্জন জোরদার হচ্ছে। এমনকি গ্রীষ্মের দলবদলে মেসির বার্সেলোনায় যোগ দেয়ার সমূহ সম্ভাবনা রয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন ক্লাবটির সভাপতি হুয়ান লাপোর্তা।

ক্লাব ফুটবলে মেসির সতীর্থ হোক বা না হোক, আর কিছু দিন পরই জাতীয় দলের হয়ে আর্জেন্টিনার মুখোমুখি হতে হবে লেভানডভস্কিকে। যেখানে বিশাল চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে হবে বলে জানান এই পোলিশ তারকা। তিনি জানান, এটি একটি বিশাল চ্যালেঞ্জ এবং খুব কঠিন একটি গ্রুপ। প্রতিটি ম্যাচই কঠিন হবে। আমি মনে করি মেসির আর্জেন্টিনা বিশ্বকাপ জয়ের দৌড়ে অন্যতম ফেভারিট। 


আরও খবর

প্রতিপক্ষকে মূল্যায়ন করতে হবে.. স্কালোনি

বৃহস্পতিবার ০১ ডিসেম্বর ২০২২

নারায়ণগঞ্জ নগরের গভীর রাতে আনন্দ মিছিল

বৃহস্পতিবার ০১ ডিসেম্বর ২০২২