Logo
শিরোনাম

প্রিয়াঙ্কার বক্তব্যে বলিউড অন্দরের বাস্তবতা

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ জুন 2০২3 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৫ জুন ২০২৪ |

Image

ফের বলিউডের অন্দরের বাস্তবতা উঠে এলো প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার বক্তব্যে। এর আগেই বলিউড ছাড়ার প্রসঙ্গ নিয়ে সরব হয়েছিলেন তিনি। এবার সেই ঘটনার কথা উঠতেই ফের বিস্ফোরক প্রতিক্রিয়া জানালেন অভিনেত্রী।

অভিনেত্রীর দাবি, ইন্ডাস্ট্রিতে তাকে একঘরে করে দেয়া হয়েছিল এবং তিনি বলিউডের অন্দরের রাজনীতিতেও ক্লান্ত হয়ে পড়েছিলেন। নতুন এক সাক্ষাৎকারে অভিনেত্রী তার শুরুর দিকের সময়ের কথা জানান।

এ নিয়ে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জি-নিউজের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, এক ম্যাগাজিনের সাক্ষাৎকারে অভিনেত্রী জানান, ২০০২-০৩ সালে একটি সিনেমায় তাকে একজন আন্ডারকভার এজেন্টের চরিত্রে কাস্ট করা হয়। সেই সময় তিনি ইন্ডাসট্রিতে নতুন ছিলেন এবং এমন একজন পরিচালকের সঙ্গে কাজ করছিলেন যার সঙ্গে তার আগে কখনও দেখা হয়নি। যখন তিনি আন্ডারকভার এজেন্টের ভূমিকায় অভিনয় করছিলেন, চিত্রনাট্য অনুযায়ী সেই দৃশ্যে এক ব্যক্তিকে সিডিউস করার কথা ছিল তার চরিত্রটির।

সেই দৃশ্যের জন্য তাকে পোশাক খুলতে হত ও চিত্রনাট্য অনুযায়ী একের পর এক পোশাক খোলার সিক্যুয়েন্স ছিল। তাই একাধিক পোশাক পরার পরিকল্পনা করেন তিনি। কিন্তু শুটের আগেই পরিচালক এসে তাকে বলেন যে, তিনি তার অন্তর্বাস দেখতে চান।

অভিনেত্রী জানান, পরিচালক এই কথাগুলো তাকে সরাসরি না বলে তার স্টাইলিস্টকে বলেন। এতেই অপমানিত বোধ করেন তিনি। তার কাছে এটা অমানবিক একটা মুহূর্ত।

প্রিয়াঙ্কা জানান, সেই সময় তার মনে হয়ছে তাকে কীভাবে ব্যবহার করা হবে সেই আলোচনায় তিনিই যেন বহিরাগত। প্রিয়াঙ্কার মনে হয় তার আর্ট গুরুত্বপূর্ণ নয়, সে কী যোগদান করছেন সেটাই গুরুত্বপূর্ণ।

দুদিন শুটিংয়ের পর অভিনেত্রী সিনেমাটি ছেড়ে বেরিয়ে আসেন এবং যা খরচ হয়েছে তা তিনি নিজের থেকেই প্রোডাকশনকে ফেরত দেন। ওই পরিচালক সম্পর্কে কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন, প্রতিদিন ওই লোককে দেখা তার পক্ষে সম্ভব ছিল না।


আরও খবর



এমপি আনার হত্যায় সিয়ামের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

প্রকাশিত:সোমবার ০৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ |

Image

সদরুল আইন:


ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনারকে খুনের উদ্দেশ্যে অপহরণের মামলার আসামি সিয়াম হোসেনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির আদেশ দিয়েছেন আদালত। 


গতকাল রোববার সন্ধ্যায় ঢাকার অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মাহবুবুল হকের আদালত এই আদেশ দেন। এ বিষয়ে আজ সোমবার (৩ মে) শেরেবাংলা নগর থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা জালাল উদ্দিন এ তথ্য জানিয়েছেন।



জালাল উদ্দিন বলেন, গত রোববার মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের সহকারি পুলিশ কমিশনার মাহফুজুর রহমানের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এই পরোয়ানা জারি করেন আদালত।



এদিকে আনোয়ারুল আজীম আনার হত্যায় জড়িত সিয়াম হোসেনকে বাংলাদেশ পুলিশের ন্যাশনাল সেন্ট্রাল ব্যুরো (এনসিবি) নেপালে আটক করেছে। বাংলাদেশি পাসপোর্টধারী সিয়াম কলকাতার নিউ টাউনের সঞ্জিভা গার্ডেনসের ফ্ল্যাটে আনারকে খুনের পর নেপালে আত্মগোপন করে। 


এরপরই ঢাকার পুলিশ তার অবস্থান নিশ্চিত হয়ে কাঠমান্ডু এনসিবিতে তাকে আটকের জন্য অনুরোধ জানিয়ে মেইল পাঠায়। পুলিশ সূত্র বলছে, সিয়ামকে বাংলাদেশে পুলিশের হাতে তুলে দিতে চাচ্ছে কাঠমান্ডু পুলিশ।


এরইমধ্যে ঢাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (ডিবি) মোহাম্মদ হারুন অর রশীদের নেতৃত্বে তিন সদস্যের দল নেপাল গেছেন। তবে দেশটির সঙ্গে বাংলাদেশের বন্দি বিনিময় চুক্তি না থাকায় সিয়ামকে ফেরাতে জটিলতা দেখা দিয়েছে।


মামলার নথি থেকে জানা যায়, গত ১২ মে সন্ধ্যায় আনোয়ারুল আজীমের মেয়ে মুমতারিন ফেরদৌস ডরিন শেরেবাংলা নগর থানায় এই মামলা দায়ের করেন। এজাহারে ডরিন বলেন, “মানিক মিয়া অ্যাভিনিউয়ের বাসায় আমরা সপরিবারে বসবাস করি।


 ৯ মে রাত ৮টার দিকে আমার বাবা আনোয়ারুল আজীম আনার গ্রামের বাড়ি ঝিনাইদহ যাওয়ার উদ্দেশ্যে যাত্রা করেন। ১১ মে বিকাল পৌনে ৫টার দিকে বাবার সঙ্গে ভিডিওকলে কথা বললে তার কথাবার্তায় কিছুটা অসংলগ্ন মনে হয়। 


এরপর বাবার মোবাইল নম্বরে একাধিকবার কল দিলেও বন্ধ পাই। গত ১৩ মে বাবার ভারতীয় নম্বর থেকে উজির মামার হোয়াটসঅ্যাপে একটি ক্ষুদে বার্তা আসে। এতে লিখা ছিল, ‘আমি হঠাৎ করে দিল্লি যাচ্ছি, আমার সঙ্গে ভিআইপি রয়েছে। 


আমি অমিত সাহার কাজে নিউ টাউন যাচ্ছি। আমাকে ফোন দেওয়ার দরকার নাই। আমি পরে ফোন দেবো।’ এছাড়া আরও কয়েকটি বার্তা আসে। ক্ষুদে বার্তাগুলো আমার বাবার মোবাইল ফোন ব্যবহার করে অপহরণকারীরা করে থাকতে পারে।”



ডরিন আরও বলেন, ‘বিভিন্ন জায়গায় বাবার খোঁজ করতে থাকি। কোনো সন্ধান না পেয়ে তার বন্ধু গোপাল বিশ্বাস বাদী হয়ে ভারতীয় বারানগর পুলিশ স্টেশনে সাধারণ ডায়েরি করেন। এরপরও আমরা খোঁজাখুজি অব্যাহত রাখি। পরবর্তীতে বিভিন্ন গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানতে পারি অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে পরস্পর যোগসাজশে বাবাকে অপহরণ করেছে।’



এদিকে এ মামলায় শিমুল ভুইঁয়া ওরফে শিহাব ওরফে ফজল মোহাম্মদ ভুইঁয়া ওরফে আমানুল্যাহ সাঈদ, তানভীর ভুইঁয়া ও শিলাস্তি রহমান প্রথম দফায় আট দিনের রিমান্ড শেষে দ্বিতীয় দফায় পাঁচ দিনের রিমান্ডে রয়েছে।


আরও খবর



সৌদি পৌঁছেছেন ৪৭ হাজার ৯৮৫ জন হজযাত্রী

প্রকাশিত:বুধবার ২৯ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ |

Image

পবিত্র হজ পালন করতে এরই মধ্যে সৌদি আরব পৌঁছেছেন ৪৭ হাজার ৯৮৫ জন হজযাত্রী। তাদের মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় ৩ হাজার ৭৪৭ জন ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ৪৪ হাজার ২৩৮ জন হজযাত্রী সৌদি গেছেন।

বুধবার হজ-সম্পর্কিত সবশেষ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। এয়ারলাইনস, সিভিল এভিয়েশন অথরিটি অব বাংলাদেশ, বাংলাদেশ হজ অফিস ঢাকা এবং সৌদি আরব সূত্রে এ তথ্য জানানো হয়।

হেল্পডেস্কের তথ্যমতে, এখন পর্যন্ত ১২১টি ফ্লাইট সৌদি আরব পৌঁছেছে। এর মধ্যে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের ৫৮টি, সৌদি এয়ারলাইনসের ৩৮টি এবং ফ্লাইনাস এয়ারলাইনস ২৫টি ফ্লাইট রয়েছে। মঙ্গলবার পর্যন্ত মোট ফ্লাইটের ৫৬ দশমিক ৬ শতাংশ ফ্লাইট আর হজযাত্রীদের মধ্যে ৫৭ শতাংশ সৌদি পৌঁছেছেন।

এদিকে সৌদি আরবে হজ পালন করতে গিয়ে এখন পর্যন্ত ৮ জন বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে মক্কায় ছয়জন এবং মদিনায় দুজন মারা যান। সবশেষ গত রবি ও সোমবার দুজন মক্কায় মারা যান।


আরও খবর



নয়াদিল্লির উদ্দেশে ঢাকা ছাড়লেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:শনিবার ০৮ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ |

Image

বিডি জিটাল ডেস্ক :


ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নরেন্দ্র মোদির শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে নয়াদিল্লির উদ্দেশে রওয়ানা হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।


শনিবার (৮ জুন) সকাল সোয়া ১০টার দিকে ঢাকা ত্যাগ করেন তিনি। মোদির শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে যোগদান শেষে ১০ জুন দুপুরে দেশে ফিরবেন প্রধানমন্ত্রী।



 বুধবার টেলিফোনে আলাপকালে শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার জন্য বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে আমন্ত্রণ জানান নরেন্দ্র মোদি। শেখ হাসিনা এই আমন্ত্রণ সাদরে গ্রহণ করেন।


আগামী ৯ জুন নরেন্দ্র মোদির শপথ নেওয়ার কথা রয়েছে। ভারতের ১৮তম লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি-নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোট ২৯৩টি এবং ইন্ডিয়া জোট ২৩৩টি আসনে জিতেছে।


আরও খবর



৫৪২ আসনের চূড়ান্ত ফল: বিজেপি ২৪০, কংগ্রেস ৯৯

প্রকাশিত:বুধবার ০৫ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ |

Image

বিডি টু ডে  ডিজিটাল ডেস্ক:


ভারতের লোকসভা নির্বাচনের ৫৪৩টি আসনের মধ্যে একটি বাদে বাকিগুলোর চূড়ান্ত ফল ঘোষণা করা হয়েছে। 


ভারতের নির্বাচন কমিশনের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ফল অনুযায়ী, ৫৪২টি আসনের মধ্যে ২৪০টিতে জয় পেয়েছে ক্ষমতাসীন দল বিজেপি। ৯৯টি আসনে জয় পেয়েছে প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেস। 


অন্য দলগুলোর মধ্যে সমাজবাদী পার্টি (এসপি) ৩৭টি, তৃণমূল কংগ্রেস ২৯টি, ডিএমকে ২২টি, তেলেগু দেশম পার্টি (টিডিপি) ১৬টি, জনতা দল (জেডি-ইউ) ১২টি, শিবসেনা (উদ্ভব) নয়টি, ন্যাশনালিস্ট কংগ্রেস পার্টি (এনসিপিএসপি) সাতটি ও শিবসেনা (এসএইচএস) সাতটি আসনে জয় পেয়েছে।



পাঁচটি আসন পেয়েছে লোক জনশক্তি পার্টি (রাম বিলাস)। চারটি করে আসনে জয় পেয়েছে কমিউনিস্ট পার্টি অব ইন্ডিয়া (মার্ক্সিস্ট)- সিপিআই (এম), ওয়াইএসআরসিপি ও রাষ্ট্রীয় জনতা দল (আরজেডি)।



আম আদমি পার্টি, ঝাড়খন্ড মুক্তি মোর্চা (জেএমএম) ও ইন্ডিয়ান ইউনিয়ন মুসলিম লীগ (আইইউএমএল) তিনটি করে আসন পেয়েছে।


কমিউনিস্ট পার্টি অব ইন্ডিয়া (সিপিআই), কমিউনিস্ট পার্টি অব ইন্ডিয়া (মার্ক্সিস্ট–লেনিনিস্ট) (লিবারেশন)–সিপিআই (এমএল) (এল), জনতা দল-জেডি (এস), জম্মু অ্যান্ড কাশ্মীর ন্যাশনাল কনফারেন্স (জেকেএন), রাষ্ট্রীয় লোক দল (আরএলডি), জনসেনা পার্টি (জেএনপি) ও ভিসিকে দুটি করে আসনে জয় পেয়েছে।



এ ছাড়া বেশ কয়েকটি দল একটি করে আসনে জয় পেয়েছে। স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে লোকসভার সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন সাতজন।


ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দুর তথ্যমতে, ঘোষিত ফল অনুযায়ী বিজেপি নেতৃত্বাধীন ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক অ্যালায়েন্স–এনডিএ জোটের মোট আসনসংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৮৬টি। অপর দিকে কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন ইন্ডিয়া জোটের মোট আসনসংখ্যা হয়েছে ২০১টি। 


যে আসনটির ফল এখনো ঘোষণা হয়নি, সেটিতে এগিয়ে আছে শারদ পাওয়ারের এনসিপিএসপি। এই দলটিও ইন্ডিয়া জোটের সঙ্গে রয়েছে। আসনটি তারা পেলে বিরোধী এই জোটের আসন সংখ্যা হবে ২০২টি।  


 ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি এককভাবে ৩০৩ আসনে জয় পেয়েছিল। সেবার বিজেপির নেতৃত্বাধীন জোট এনডিএ ৩৫২ আসনে জয় পায়। এবার বিজেপি সবচেয়ে বেশি আসন পেলেও সরকার গঠনের জন্য প্রয়োজনীয় আসন পায়নি। সে ক্ষেত্রে এনডিএ জোট শরিকদের ওপর নির্ভর করতে হবে বিজেপিকে।


গত নির্বাচনে কংগ্রেস এককভাবে পেয়েছিল ৫২টি আসন। আর কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন তৎকালীন ইউপিএ জোট পেয়েছিল ৯৪ আসন।


লোকসভার মোট ৫৪৩ আসনের মধ্যে সরকার গঠনের জন্য প্রয়োজন হয় ২৭২ আসন। সে ক্ষেত্রে বিজেপি তার জোটসঙ্গীদের নিয়ে সরকার গঠন করতে পারবে। তবে জোটসঙ্গীদের মধ্যে বেশি আসন পাওয়া দলগুলো বিরোধী শিবিরে গেলে চিত্র ভিন্ন হতে পারে।


বিজেপি নেতৃত্বাধীন জোটের শরিকদের প্রধান অন্ধ্রপ্রদেশে চন্দ্রবাবু নাইডুর তেলেগু দেশম পার্টি ১৬টি এবং বিহারে মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারের জনতা দল-ইউনাইটেড (জেডি–ইউ) ১২টি আসনে জয় পেয়েছে। এই দুই দল ছাড়া আরও একাধিক এনডিএ শরিকের ওপর নির্ভর করতে হবে বিজেপিকে। 


এদের মধ্যে রয়েছে মহারাষ্ট্রের শিবসেনার সিন্ধে গোষ্ঠী, বিহারে লোক জনশক্তি পার্টি এবং উত্তর প্রদেশের রাষ্ট্রীয় লোক দল।


আরও খবর



মাভাবিপ্রবিতে রংপুর ডিভিশনাল এসোসিয়েশনের নতুন কমিটি গঠন

প্রকাশিত:রবিবার ১৬ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৪ জুন 20২৪ |

Image

মো: হ্নদয় হোসাইন, মাভাবিপ্রবি প্রতিনিধি :

মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (মাভাবিপ্রবি ) রংপুর ডিভিশনাল এসোসিয়েশনের (আরডিএ) নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের সিপিএস বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী মোহাম্মদ রওশন জামিল সভাপতি এবং বিএমবি বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী মো: রিফাত সরকার সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছে।   গত শুক্রবার (১৫ জুন )  বিদায়ী কমিটির সভাপতি আরব হোসেনসহ সকল সম্মানিত উপদেষ্টা মন্ডলীর সম্মিলিত মতামতের ভিত্তিতে এই কমিটি ঘোষণা করেন।   

কমিটির অন্যান্য সদস্যরা হলেন সহ-সভাপতি  ওমর ফারুক, আজমিরা আঁখি, নাহিদ উদয়, মোস্তফা মিম,রাসেল আহমেদ, নাসিমুল হক, খালিদ হাসান,মমিনুল বারী বর্ষণ,মৃণাল কান্তি বর্মন। যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক মশিউর রহমান, ওয়াহিদ বিত্ত, মিথিলা হাসান,মো:আক্তারুল ইসলাম,রকিবুল হাসান রকি,মোতাহার চয়ন। জেলা আহ্বায়ক বিপ্লব চন্দ্র বর্মন(পঞ্চগড়),মিরা আক্তার(ঠাকুরগাঁও),নসিবুর রহমান(নীলফামারী),রত্না সরেন(দিনাজপুর),পারভেজ আহমেদ (কুড়িগ্রাম),হিমেল হাসান (গাইবান্ধা),রুপা মজুমদার (রংপুর),ফজলে রাব্বী(লালমনিরহাট) । সাংগঠনিক সম্পাদক নুজহাত তাবাসসুম নাবিলা। দপ্তর সম্পাদক আব্দুল আওয়াল। কোষাধ্যক্ষ মুরাজ খান। প্রচার সম্পাদক অমিত হাসান।   ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন, মাহবুব উর রশিদ । সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক রঙ্গন রায় উৎসব,শিশির রায়,সাবিহা তাবাসসুম সৌখিন। ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট খালিদ হোসেন, রিংকু চন্দ্র বর্মন, মো: আশিক।দুর্যোগ ও ত্রাণ বিষয়ক সম্পাদক  সৌরভ, শুভ, আরাফাত রাকিব,রাকিবুল হাসান। কার্যকরী সদস্য  মন্দীপ রায়,তরী,সিন্ধু রাণী রায়সহ আরো অনেকে।  

 এছাড়াও সম্মানিত উপদেষ্টা মন্ডলী হিসেবে কমিটিতে আছেন ড. মো: মাসুদার রহমান, ড.মো: আবীর হোসেন, মৃণাল চন্দ্র বর্মন, ড.মো: রুস্তম আলী,শেখ শাহজাহান,মো: নাসির উদ্দীন, মো: শাহআলম ।  আজীবন উপদেষ্টা মন্ডলী লিয়াকত আলী সবুজ, রাশেদ ইমাম,সাদ্দাম হোসেন। উল্লেখ্য যে, রংপুর  জেলা হতে আগত মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের নিয়ে রংপুর ডিভিশনাল এসোসিয়েশন পরিচালিত হয়। 

কমিটির নতুন সভাপতি বলেন, যদিও বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো স্থানে আঞ্চলিকতার কোনো জায়গা নেই; তবুও বিশেষ কিছু কারণে, বিশেষ কিছু প্রয়োজনে আমরা উত্তরবঙ্গ থেকে আগত সকল শিক্ষার্থী একত্রিত হওয়ার লক্ষ্যেই 'রংপুর ডিভিশনাল এসোসিয়েশন'। অনেকগুলো কারণের মধ্যে ভাষাও একটি কারণ; যেখানে অন্য সব জায়গার মানুষের সাথে আমাদের ভাষার সংজ্ঞা হয় ধ্বনি,শব্দ এবং বাক্যের ;সেখানে উত্তরবঙ্গের আমাদের মধ্যে ভাষার সংজ্ঞা ধ্বনি, শব্দ,বাক্যের সাথেও আচার-আচরণ, চাহনি, পোশাকআশাক, অঙ্গভঙ্গি'র মতো ছোটছোট বিষয়গুলোও সংযুক্ত হয় বলে আমার ধারণা। সর্বপরি আরডিএ সকলের সহায়তায় সবার জন্য ভালো কাজ করতে পারলেই এর মূল উদ্দেশ্য সফল হবে।এছাড়া সাধারণ সম্পাদক আরো বলেন, রংপুর ডিভিশনাল অ্যাসোসিয়েশন ,  মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্ববৃহৎ অরাজনৈতিক সংগঠন।বৃহত্তর রংপুর অঞ্চলের ছাত্রদের কল্যাণে আমার উপর যে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে সেটা সঠিক ভাবে পালন করবো। বৃহৎ পরিসরে ছাত্রদের কল্যাণে কাজ  করাই লক্ষ্য


আরও খবর