Logo
শিরোনাম

স্বর্ণের ভরি লাখ টাকা ছুঁই ছুঁই

প্রকাশিত:Friday ২০ January ২০23 | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

রোকসান মনোয়ার :দেশের বাজারে সোনার দাম বাড়ানো হয়েছে। স্থানীয় বাজারে তেজাবী সোনার (পাকা সোনা) দাম বাড়ার প্রেক্ষিতে এ দাম বাড়ানো হয়েছে। এতে দেশের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো এক ভরি সোনার দাম ৯৩ হাজার টাকা ছাড়িয়ে গেছে। সবচেয়ে ভালো মানের সোনার দাম ভরিতে দুই হাজার ৬৮৩ টাকা বাড়িয়ে নতুন দাম নির্ধারণ করা হয়েছে। এতে ভালো মানের প্রতি ভরি সোনার দাম বেড়ে হয়েছে ৯৩ হাজার ৪২৯ টাকা।

চলতি বছরের ৮ জানুয়ারি, গত বছরের ৩০ ও ৪ ডিসেম্বর এবং ১৮ ও ১৩ নভেম্বর দেশের বাজারে সোনার দাম বাড়ানো হয়। ফলে দুই মাসের ব্যবধানে দেশের বাজারে ছয় দফা সোনার দাম বাড়লো। এতে দেশের বাজারে ইতিহাসের সর্বোচ্চ দামে পৌঁছে গেছে দামি এ ধাতুর দাম। এর আগে কখনো দেশের বাজারে সোনার ভরি ৯৩ হাজার টাকা স্পর্শ করেনি। গত ৮ জানুয়ারি সবচেয়ে ভালো মানের সোনার দাম ভরিতে দুই হাজার ৩৩৩ টাকা বাড়ানো হয়। এতে এক ভরি সোনার দাম দাঁড়ায় ৯০ হাজার ৭৪৬ টাকা করা। দেশের বাজারে ওই প্রথম সোনার ভরি ৯০ হাজার টাকা স্পর্শ করে।

 সপ্তাহ না ঘুরতেই সেই রেকর্ড ভেঙে নতুন উচ্চতায় পৌঁছালো সোনার দাম। ভালো মানের সোনার পাশাপাশি বাড়ানো হয়েছে সব ধরনের সোনার দাম। মান অনুযায়ী- প্রতি ভরি সোনার দাম বাড়ানো হয়েছে এক হাজার ৮০৭ টাকা থেকে দুই হাজার ৬৮৩ টাকা পর্যন্ত। পরবর্তীসময়ে মূল্য নির্ধারণ ও মূল্য পর্যবেক্ষণ সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান এনামুল হক ভূইয়া লিটনের সই করা এক বিজ্ঞপ্তিতে দাম বাড়ানোর এ সিদ্ধান্ত জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, স্থানীয় বাজারে তেজাবী সোনার দাম বেড়েছে। তাই সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় বাংলাদেশ জুয়েলারি সমিতি সোনার নতুন দাম নির্ধারণ করেছে, যা ১৫ জানুয়ারি থেকে কার্যকর হবে। নতুন মূল্য অনুযায়ী- সবচেয়ে ভালো মানের বা ২২ ক্যারেট প্রতি ভরি (১১.৬৬৪ গ্রাম) সোনার দাম দুই হাজার ৬৮৩ টাকা বাড়িয়ে ৯৩ হাজার ৪২৯ টাকা করা হয়েছে। এছাড়া ২১ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম দুই হাজার ৫৬৬ টাকা বাড়িয়ে ৮৯ হাজার ১৭১ টাকা করা হয়েছে। ১৮ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম দুই হাজার ২১৭ টাকা বাড়িয়ে ৭৬ হাজার ৪৫৮ টাকা করা হয়েছে। আর সনাতন পদ্ধতির সোনার দাম ভরিতে এক হাজার ৮০৭ টাকা বাড়িয়ে ৬৩ হাজার ৬৮৫ টাকা করা হয়েছে।

সোনার দাম বাড়লেও অপরিবর্তিত রয়েছে রুপার দাম। ২২ ক্যারেটের এক ভরি রুপার এক হাজার ৭১৫ টাকা, ২১ ক্যারেটের রুপা এক হাজার ৬৩৩ টাকা, ১৮ ক্যারেটের রুপা এক হাজার ৪০০ টাকা ও সনাতন পদ্ধতির রুপা এক হাজার ৫০ টাকা ভরি বিক্রি হচ্ছে।

 


আরও খবর

কমছে আয়, বাড়ছে ব্যয়

Saturday ০৪ February ২০২৩




সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে ওয়ান স্টপ সার্ভিস

প্রকাশিত:Monday ২৩ January 20২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ওয়ান স্টপ ইমার্জেন্সি সার্ভিস চালুর পর থেকে রোগীদের মৃত্যুঝুঁকি কমতে শুরু করেছে। হাসপাতাল পরিচালক বলছেন, জরুরি রোগীর সেবায় ল্যাব সাপোর্ট, আলট্রাসনোগ্রাম, পোর্টেবল এক্সরেসহ প্রায় সব ধরনের সুবিধা রয়েছে। সেবা চলমান রাখতে চিকিৎসক, সেবিকা ও মেডিক্যাল টেকনোলজিস্ট প্রয়োজন।

সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ওয়ান স্টপ ইমার্জেন্সি সার্ভিস চালুর পর থেকে জরুরী রোগীদের ভীড় বেড়েই চলেছে ।

প্রথমে একজন রোগী এলেই শুরু হয় ডাটা এন্ট্রি।এরপর রোগের উপসর্গ ভেদে শুরু হয় চিকিৎসা।সামান্য রোগ নিয়ে আসা রোগীদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বাড়ী ফেরত পাঠানো হয় ।আর, রোগী জটিল হলে শুরু হয় চুড়ান্ত চিকিৎসা।সহজে সেবা পেয়ে খুশি সাধারণ মানুস

সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক বলছেন, যে কোনও রোগী দিন-রাত ২৪ ঘণ্টা চিকিৎসা নিতে পারবেন। জরুরি রোগীর সেবায় অত্যাধুনিক ল্যাব সাপোর্ট, আলট্রাসনোগ্রাম, ইসিজি, পোর্টেবল এক্সরেসহ প্রায় সব ধরনের ডায়াগনস্টিক সুবিধা রয়েছে এই সার্ভিসে। প্রয়োজনে জরুরি অপারেশনের সুবিধাও মিলবে। আছে আইসিইউ সাপোর্টও।

পরিচালক বলছেন, এই মুহুর্তে জরুরী ভাবে হাসপাতালে রোগীর চাহিদা অনুযায়ী আরো বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক, সেবিকা ও স্বাস্থ্যকর্মী প্রয়োজন। সেই চাহিদা পত্র নিয়ে অধিদপ্তর ও মন্ত্রণালয়ে আলোচনা চলছে

 


আরও খবর



৯৩ হাজার টাকা ছাড়াল স্বর্ণের দাম

প্রকাশিত:Wednesday ১৮ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

এক সপ্তাহের ব্যবধানে দেশের বাজারে স্বর্ণের দাম ভরিতে দুই হাজার টাকার বেশি বেড়েছে। নতুন দর অনুযায়ী প্রতি ভরি ভালো মানের স্বর্ণ কিনতে গ্রাহককে গুনতে হবে ৯৩ হাজার টাকার বেশি।

বাংলাদেশ জুয়েলার্স অ্যাসোসিয়েশন-বাজুস দাম বাড়ানোর এই সিদ্ধান্ত নেয়। এর আগে গত ৭ জানুয়ারি স্বর্ণের দাম বাড়ায় বাজুস, যা ৮ জানুয়ারি থেকে কার্যকর হয়েছে। তখন প্রথমবারের মতো দেশের বাজারে প্রতি ভরি স্বর্ণের দাম ৯০ হাজার টাকা ছাড়ায়।

বাজুসের মূল্য নির্ধারণ ও মূল্য পর্যবেক্ষণ স্থায়ী কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান এনামুল হক ভূঁইয়া লিটন স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, 

বাজুস ভালো মানের স্বর্ণ ভরিতে দুই হাজার ৬৮৩ টাকা বাড়িয়েছে। এতে প্রতি ভরি সোনার দাম বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯৩ হাজার ৪২৯ টাকা। আগে এই দাম ছিল ৯০ হাজার ৭৪৬ টাকা।


আরও খবর

কমছে আয়, বাড়ছে ব্যয়

Saturday ০৪ February ২০২৩




লালমনিরহাটে বিদ্যুৎ স্পৃষ্টে মারাগেছে স্কুলছাত্র

প্রকাশিত:Friday ০৩ February ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

নিজস্ব প্রতিনিধি :

লালমনিরহাটের কালীগঞ্জে বয়লার মুরগীর খামার পরিস্কার করতে গিয়ে বিদ্যুৎ স্পৃষ্ট হয়ে এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে।

আজ শুক্রবার বিকেল ৪ টার দিকে উপজেলার গোড়ল ইউনিয়নের সেবকদাস গ্রামে এ দূর্ঘটনা ঘটে।

নিহত স্কুলছাত্রের নাম মোঃ শাহীন, সে নিথক এস.এসইচ.পি উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর ছাত্র।এবং সেবকদাস এলাকার হাফিজুল ইসলাম বাচ্চার পুত্র।

স্থানীসূত্রে জানাগেছে নিহত স্কুলছাত্র শাহীন দুপুরের খাবার শেষে তাদের বাড়ী সংলগ্ন বয়লার মুরগীর খামারে কোদাল দিয়ে মেঝে পরিস্কার করছিলো।খামার ঘরের ছাদ থেকে ঝুলে থাকা বিদুৎতের তার শাহিনের কোদালে লেগে কেটে যায় এবং কাটা তার তার গায়ে জড়িয়ে ঘঠনাস্থলেই বিদুৎ স্পৃষ্ট হয়ে নিহত হয় শাহীন।স্থানীয় বাসিন্দা শাহারআলী জানায়,নিজের কাজে ব্যস্ত ছিলাম হঠাৎ শুনলাম প্রতিবেশী স্কুলছাত্র শাহীন বিদুৎ স্পৃষ্টে নিহত হয়েছে।শান্ত ও ভদ্র স্বভাবের ছিলো ছেলেটি।

গোড়ল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নুরুল আমিন জানান পানির লাইন সংযোগ দেয়ার সময় বিদ্যুত স্পৃষ্টে মারাগেছে শাহীন। পুলিশ ঐ বাড়িতে এখনো রয়েছে এবং নিয়মানুযায়ী পদক্ষেপ গ্রহণ করার প্রস্তুতি চলছে। 


আরও খবর



মোরেলগঞ্জে মৎস্য ঘের দখলে মরিয়া একটি মহল

প্রকাশিত:Tuesday ৩১ January ২০২৩ | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

এম.পলাশ শরীফ, বাগেরহাট :

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে জিউধরায় একটি মৎস্য ঘের দখলের পায়তারা জোরপূর্বক মাটি কেটে ভেরিবাঁধ দেওয়ার ঘটনায় থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে ভূক্তভোগী কৃষক পরিবার।

 অভিযোগে জানাগেছে, মঙ্গলবার সকালে জিউধরা ইউনিয়নের ঠাকুরান তলা গ্রামে কৃষক জাকির হোসেন খানের পৈত্রিক সম্পত্তি দুই একর ৬৯ শতক জমির মৎস্য ঘেরের মধ্যে একটি অংশে জোরপূর্বক মাটি কেটে ভেরিবাঁধ দিয়ে ঘেরটি দখলে নেওয়ার জন্য হামলা করে একই গ্রামের শাহাদৎ শরীফের নের্তৃত্বে মনির শরীফসহ ৮/১ জনের একটি সংর্ঘবদ্ধ হয়ে মাটি কাটে ভেরিবাঁধ দেয়। এ সময় তাদের বাঁধা দিলে কৃষক জাকিরকে জমি থেকে তাড়িয়ে দেয়। এ ঘটনার পরপরই ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক জাকির হোসেন খান বাদি হয়ে শাহাদৎ শরীফসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। কৃষক জাকির খান ও তার স্ত্রী পলি বেগম বলেন, জমিতে হামলাকারিরা এলাকার প্রভাবশালী। ৩০/৪০ বছর ধরে পৈত্রিক জমিতে মৎস্য ঘের করে আসছি। হঠাৎ করে লোকজন নিয়ে ঘেরটি দখলের চেষ্টা করেছে। আমরা ন্যায় বিচার দাবি করছি প্রশাসনের প্রতি।

 এ বিষয়ে থানার ডিউটিরত অফিসার এএসআই মিঠুন বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে তাৎক্ষনিক ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। পরিস্থিতি শান্ত করে মাটি কাটা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

এ সর্ম্পকে মো. শাহাদৎ শরীফ বলেন, আমাদের জমির মাটি আমরা কেটেছি। জাকির খান জাল দলিল করেছে। সে বিষয়ে আদালতে মামলাও রয়েছে। #


আরও খবর



মোরেলগঞ্জে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দৈন্যদশা শিক্ষার্থী ৮ শিক্ষক ২

প্রকাশিত:Thursday ০২ February 2০২3 | হালনাগাদ:Saturday ০৪ February ২০২৩ |
Image

এম. পলাশ শরীফ, নিজস্ব প্রতিবেদক :

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীর উপস্থিতি দিন দিন কমে যাচ্ছে। প্রত্যন্ত অঞ্চলের স্কুলগুলোতে দৈন্যদশা। নির্ধারিত সময়ের পূর্বেই অনেক বিদ্যালয়ে ছাত্র/ছাত্রীদের ছুটি দিয়ে বাড়ি চলে যাচ্ছেন শিক্ষকেরা। ছুটি না নিয়ে অনেকেই থাকছেন অনুপস্থিত। পরেরদিন হাজিরা খাতায় স্বাক্ষর করে দেখানো হচ্ছে নিয়মিত হাজিরা। সময়ের প্রতি তোয়াক্কা না করে ইচ্ছামাফিক আসছেন বিদ্যালয়ে। কোথাও কোথাও প্রধান শিক্ষকের নির্দেশনা মানছেনা সহকারী শিক্ষকেরা। নৈশপ্রহরী পদে অনেকেই মাসের পর  মাস বিদ্যালয়ে না এসেও পার করছেন দিন। সরেজমিনে এরকম একটি বিদ্যালয়ের ৩টি শ্রেণীকক্ষে উপস্থিত শিক্ষার্থী রয়েছে জন ৮। ৫টি পদে কর্মরত শিক্ষক ৫জন থাকলেও উপস্থিত রয়েছে ২জন। সংশ্লিষ্ট কর্তাব্যক্তিদের নেই কোন নজরদারি। প্রথমিক শিক্ষার মানোন্নয়নে বিভিন্ন বরাদ্দ থাকলেও তা ব্যবহৃত হচ্ছে অপরিকল্পিতভাবে। কাজে আসছেনা বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অর্থ বরাদ্দ। দায়সারাভাবে ক্লাসে পাঠ দিয়ে কোনমতে দিন পার করছেন একাধিকরা।

 উপজেলার জিউধরা ইউনিয়নের ২৩১ নং ঠাকুরনতলা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়। এ বিদ্যালয়টি ১৯৯০ সালে স্থাপিত। মঙ্গলবার সময় দুপুর ১২টা ৩০ মিনিট। বিদ্যালয়ে মোট শিক্ষার্থী হাজিরা খাতায় ১১৪ জন। উপস্থিতি রয়েছে ৩টি শ্রেণীকক্ষে মাত্র ৮ জন শিক্ষার্থী। এদের পাঠদান দিচ্ছেন সহকারী শিক্ষক ফাতিমা আক্তার ও শান্তনু তাফালী ২ শিক্ষক। ৩য় শ্রেণীতে উপস্থিত ১ জন মাত্র শিক্ষার্থী মারিয়া সুলতানা, চতুর্থ ৪ জন ও ৫ম শ্রেনীতে ৩ জন। একটি  শ্রেণী কক্ষে ৪র্থ ও ৫ম শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের পাঠদান চলতে দেখা গেছে। ভারপ্রাপ্ত প্রধানশিক্ষক আকলিমা খানম রয়েছেন অফিসিয়াল কাজে উপজেলা সদরে। সহকারী শিক্ষিকা পপি সুলতানা ছুটি না নিয়েও বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত। আরেকজন সহকারী শিক্ষিকা খায়রুন্নাহার রয়েছেন ৩ দিনের ছুটিতে। বিদ্যালয়টিতে সরকারীভাবে ক্ষুদ্র মেরামত, ¯িøপ, প্রাক- প্রাথমিক, করোনা সহায়তা সহ একাধিক বরাদ্দ, পুরাতন ভবনের সামনেই নির্মিত হচ্ছে নতুন স্কুল ভবন। এতসব বরাদ্দ পেয়েও হয়নি পরিবর্তন, মানোন্নয়নও হয়নি শিক্ষা ব্যবস্থার। শিক্ষার্থীর উপস্থিতি ক্রমান্বয়ে কমছে।

   এ সম্পর্কে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আকলিমা খানম মুঠোফোনে জানান, তিনি অফিসিয়াল কাজে উপজেলা সদরে যাবার কথা ছিলো। শারীরিক অসুস্থতার কারনে বাড়ীতে রয়েছে। একজন সহকারী শিক্ষক রয়েছে ৩দিনের ছুটিতে, সহকারী শিক্ষক পপি সুলতানার অনুপস্থিতির বিষয়ে তিনি কিছুই জানেননা।

   উপজেলা শিক্ষা অফিসার শেখ মুস্তাফিজুর রহমান বলেন, তিনি সদ্য মাত্র এ উপজেলায় যোগদান করেছেন। আগামী ১৩ ফেব্রæয়ারি শিক্ষকদের মাসিক সভার পর বিদ্যালয়ের বিদ্যমান অনিয়ম ও সমস্যাগুলোর পরিবর্তন আসবে বলে তিনি মনে করেন।  

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার এস.এম তারেক সুলতান বলেন, উপজেলার শিক্ষাব্যবস্থার বর্তমান হালহকিকত এভাবে চলতে পারেনা। তিনি নিজেও একটি বিদ্যালয় সরেজমিন পরিদর্শনে গিয়ে ১৯ জন শিক্ষার্থীর উপস্থিত পেয়েছেন। এ অবস্থার পরিবর্তন ও ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ইতিমধ্যে শিক্ষা অফিসারদের নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।  


আরও খবর